ছবি সংগৃহীত

যেভাবে রেকর্ডিং হল রুনা লায়লা ও ইমরানের নতুন গান

একটু পরেই রেকর্ডিং, তাও আবার রুনা লায়লার সঙ্গে! আগে ভাগেই তাই এসে উপস্থিত ইমরান। একটি দোকানে চা খেয়ে গলাটা একটু পরিস্কার করে নিচ্ছেন এই কণ্ঠশিল্পী। এক কাপ চা নিয়ে গল্প জুড়ে দিলাম ইমরানের সঙ্গে।

স্নেহাশীষ ঘোষ
লেখক
প্রকাশিত: ০৫ জানুয়ারি ২০১৬, ০৮:৫৫ আপডেট: ১৮ জুন ২০১৮, ০২:৩৪
প্রকাশিত: ০৫ জানুয়ারি ২০১৬, ০৮:৫৫ আপডেট: ১৮ জুন ২০১৮, ০২:৩৪


ছবি সংগৃহীত

ছবি: নাঈম প্রিন্স 

(প্রিয়.কম) আগে থেকেই খবর ছিল ৪ জানুয়ারি সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় একটি সিনেমার গানে কণ্ঠ দেবেন কিংবদন্তী কণ্ঠশিল্পী রুনা লায়লা। সঙ্গে গাইবেন এ প্রজন্মের অন্যতম জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী ইমরান, রুনা লায়লা এবং সাবিনা ইয়াসমিনের হাত ধরেই সেরাকণ্ঠের মাধ্যমে সঙ্গীতাঙ্গনে পদার্পণ যার। তো ফটোসাংবাদিক নাইম প্রিন্সকে সঙ্গে নিয়ে স্টুডিওর সামনে হাজির হলাম ঘণ্টাখানেক আগে। গিয়েই সেখানে দেখা মিলল ইমরানের। একটু পরেই রেকর্ডিং, তাও আবার রুনা লায়লার সঙ্গে! আগে ভাগেই তাই এসে উপস্থিত ইমরান। একটি দোকানে চা খেয়ে গলাটা একটু পরিস্কার করে নিচ্ছেন এই কণ্ঠশিল্পী। এক কাপ চা নিয়ে গল্প জুড়ে দিলাম ইমরানের সঙ্গে।

জানতে চাইলাম কিংবদন্তীর সঙ্গে দ্বৈত গান, তাও আবার প্রথমবারের মতো। কেমন অনুভূতি কাজ করছে নিজের ভেতর? ‘জীবনের অন্যতম বড় একটি স্বপ্ন পূরণ হল আজ। সেরাকণ্ঠ থেকে বেরিয়ে সাবিনা ইয়াসমিন ম্যাডামের সঙ্গে প্লেব্যাক করি যা ছিল আমার ক্যারিয়ারের প্রথম প্লেব্যাক। এরপর তার সঙ্গে আমার প্রথম একক অ্যালবামে আমার নিজের সুরে একটি গান করারও সৌভাগ্য হয়েছে। কিন্তু রুনা লায়লা ম্যাডামের সঙ্গে এখন পর্যন্ত কোন গানে কণ্ঠ দেওয়ার সৌভাগ্য হয়নি। স্বপ্ন জমা রেখেছিলাম বুকের মাঝে। আজ তা পূরণ হতে যাচ্ছে। এই অনুভূতি ভাষায় প্রকাশ করার মতো নয়।‘ জানালেন ইমরান। 

কথা বলতে বলতে চা গিয়ে ঠেকেছে কাঁপের তলানিতে। দোকান থেকে তিনজন পা বাড়ালাম স্টুডিওর দিকে। স্টুডিওতে গিয়ে দেখা মিলল সঙ্গীতপরিচালক আলী আকরাম শুভর এবং এই সিনেমার পরিচালক আব্দুল মান্নানের। সবাই রুনা লায়লার জন্য অধীর অপেক্ষায়। ঘড়ির কাটা সাড়ে সাতটা তখনো ছুঁতে পারেনি, স্টুডিওতে উপস্থিত রুনা লায়লা। কিংবদন্তী হতে হলে শুধু কণ্ঠ নয়, আরও অনেককিছুই যে মেনে চলতে হয় তারই যেন এক উদাহরণ দিলেন তিনি। সবাই দাঁড়িয়ে স্বাগত জানালেন তাঁকে। ফুল দিয়ে তাঁকে স্বাগত জানালেন ইমরানও। 

স্টুডিওতে এসে গানটি শুনে নিজের কণ্ঠে তুলে নিলেন রুনা লায়লা। এরপর একমুহূর্ত দেরী না করে সরাসরি রেকর্ডিং রুমে চলে গেলেন। সঙ্গে নিলেন এক মগ চা। একদিকে আমরা সবাই। অন্যদিকে কাঁচের ওপাশে রেকর্ডিং রুমে রুনা লায়লা। শুরু হল রেকর্ডিং। রুনা লায়লার কণ্ঠ নিঃসৃত এক একটি সুরেলা বাক্য যেন অনাবিল এক প্রশান্তি এনে দিল সবার মনে। এর মাঝেই স্টুডিওতে এসে উপস্থিত গানের গীতিকার সুদীপ কুমার দীপ। বললেন, ‘অফিস শেষে রাস্তায় একটু জ্যাম ছিল যার জন্য মিনিট পনের দেরী হয়েছে।'

রুনা লায়লার মতো একজন কণ্ঠশিল্পীর কণ্ঠ রেকর্ড করছেন আলী আকরাম শুভ। একটু জড়তা নিজের ভেতর কাজ করাটাই স্বাভাবিক। এটা হয়তো বুঝতে পেরেই তাকে অভয় দিলেন রুনা লায়লা। বললেন, গান সৃষ্টি করেছেন তিনি (আলী আকরাম শুভ)। সুতরাং সে গানটা থেকে কি চাচ্ছে তা যেন শতভাগে আদায় করে নেন। শুরু হল রেকর্ডিং। আলী আকরাম শুভ গানের যে অংশে যেমনভাবে চাচ্ছেন তেমন ভাবেই যেন নিজের কণ্ঠের জাদুতে উপহার দিতে থাকলেন রুনা লায়লা। রেকর্ডিং এর ফাঁকে ফাঁকে ঠোঁট রাখছেন চায়ের কাঁপে। এভাবেই মিনিট বিশেকের মধ্যে শেষ হল গানে রুনা লায়লার অংশের রেকর্ডিং। 

স্টুডিও থেকে বেরিয়ে একটু বসে নিজের কণ্ঠটা শুনে নিলেন রুনা লায়লা। পাশে বসে আছেন ইমরান। গান শুনতে শুনতে ইমরানের কণ্ঠের প্রশংসা শুরু করলেন রুনা লায়লা। কণ্ঠের পাশাপাশি ইমরানের সঙ্গীতপরিচালনারও প্রশংসা করলেন তিনি। জানালেন টিভিতে প্রায়ই ইমরানের গান দেখেন তিনি। ইমরানের একটু ভিন্ন ধরণের কাজ করার আগ্রহে খুশি রুনা লায়লা। কিংবদন্তীর মুখে নিজের কাজের প্রশংসা। লজ্জায় যেন মুখটা লাল ইমরানের।  

নিজের কণ্ঠ শোনার শেষে সবাই ভাবলেন গান গাওয়া যেহেতু শেষ, এবার বোধহয় চলে যাবেন রুনা লায়লা। কিন্তু না, ইমরান কেমনভাবে গানটি গাইবেন তা একটু দেখে যেতে চাইলেন তিনি। রুনা লায়লার পা ছুঁয়ে সালাম করে ইমরান পথ ধরলেন রেকর্ডিং রুমের। হেডফোনটা কানে নিয়ে শুরু করলেন গাওয়া। চলছে ইমরানের রেকর্ডিং। ‘এভাবে না, বাক্যটি ওভাবে গাইলে শুনতে ভালো লাগবে’ বলে কিছু কিছু জায়গায় তার ভুল ধরিয়ে দিলেন রুনা লায়লা। এমন করে কিছু সময়ের পর সবাইকে জানালেন এবার যেতে হবে তাকে। ইমরানের রেকর্ডিং এর মাঝপথেই বের হলেন তিনি। বিদায় নিলেন সবার কাছ থেকে। রেকর্ডিং রুম থেকে তাকে বিদায় জানালেন ইমরান। রুনা লায়লা যাওয়ার মিনিট পঁচিশের মধ্যে শেষ হল ইমরানের রেকর্ডিংও।'

আব্দুল মান্নান পরিচালিত ‘পাংখু জামাই’ শিরোনামের এই সিনেমায় রুনা লায়লা এবং ইমরানের গাওয়া এই টাইটেল ট্রাকের সঙ্গে পর্দায় ঠোঁট মেলাতে দেখা যাবে জনপ্রিয় জুটি শাকিব খান এবং অপু বিশ্বাসকে। ইতিমধ্যে এই ছবির মহরত শেষ হয়েছে। শাকিব এবং অপু এখন দেশের বাইরে আছেন। তারা দেশে ফিরলেই শুরু হবে শুটিং। 

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

‘ট্র্যাপড’ আসছে

প্রিয় ৩ ঘণ্টা, ৪ মিনিট আগে

loading ...