(প্রিয়.কম) আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ব্যস্ত সূচি না থাকায় বিভিন্ন দেশে ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক ঘরোয়া লিগে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা। ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (সিপিএল) ও ইংলিশ কাউন্টি লিগে খেলছেন সব মিলিয়ে ১৩ পাকিস্তানি ক্রিকেটার। এবার তাদের প্রত্যেককে দেশে ফেরার নির্দেশ দিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)।

১২ আগস্ট শনিবার এক বার্তায় দেশের বাইরে থাকা ১৩ ক্রিকেটারকে ডেকে পাঠিয়েছে দেশটির ক্রিকেট বোর্ড। ডেকে পাঠানো ১৩ ক্রিকেটারের মধ্যে সিপিএল খেলতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ রয়েছেন ১০ জন। এছাড়া বাকি তিনজন খেলছেন ইংল্যান্ডে কাউন্টি ক্রিকেটে।

আগামী ২৫ আগস্ট থেকে পাকিস্তানে শুরু হচ্ছে জাতীয় টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট। এরপর সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি পাকিস্তানের মাটিতে খেলতে যাচ্ছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) বিশ্ব একাদশ। দুই টুর্নামেন্টের ব্যস্ততা না কাটতেই দুবাইয়ে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দ্বি-পাক্ষিক সিরিজে মাঠে নামবে পাকিস্তানিরা। এসব সিরিজগুলোকে সামনে রেখেই মূলত ক্রিকেটারদের ডেকে পাঠিয়েছে দেশটির ক্রিকেট বোর্ড।

এর আগে বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তিতে থাকা ক্রিকেটারদের মধ্য থেকে ১৩ জনকে সিপিএল ও কাউন্টি খেলার জন্য অনুমতি দেয়। এসময় অবশ্য শর্ত জুড়ে দেওয়া হয়েছিলো, প্রয়োজনে যেকোনো সময় তাদের ডেকে পাঠাবে পিসিবি। কাউন্টি খেলতে ইংল্যান্ডে অবস্থান করছেন দেশটির অধিনায়ক সরফরাজ খান, ফখর জামান ও মোহাম্মদ আমির।

সিপিএল খেলতে যাওয়া ক্রিকেটারদের মধ্যে রয়েছেন ইমাদ ওয়াসিম, শাদাব খান, হাসান আলী, মোহাম্মদ সামি, শোয়েব মালিক, মোহাম্মদ হাফিজ, ওয়াহাব রিয়াজ, বাবর আজম, সোহেল তানভীর এবং কামরান আকমল। আগামী ২২ আগস্টের মধ্যে জাতীয় ক্রিকেট একাডেমিতে প্রধান কোচ মিকি আর্থারের কাছে রিপোর্ট করতে বলা হয়েছে বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তিতে থাকা ক্রিকেটারদের।

প্রিয় স্পোর্টস/সজিব