সি পি গুরনানি ও মুকেশ আম্বানি। সংগৃহীত ছবি

মুকেশ আম্বানির চেয়েও প্রায় ১০ গুণ বেশি বেতন পান এই ব্যক্তি

রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের কর্ণধার হিসেবে তিনি বছরে বেতন পান ১৫ কোটি রুপি।

আশরাফ ইসলাম
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ১০ জুলাই ২০১৮, ১১:১৯ আপডেট: ২০ আগস্ট ২০১৮, ১৭:৩২
প্রকাশিত: ১০ জুলাই ২০১৮, ১১:১৯ আপডেট: ২০ আগস্ট ২০১৮, ১৭:৩২


সি পি গুরনানি ও মুকেশ আম্বানি। সংগৃহীত ছবি

(প্রিয়.কম) প্রতিটি মানুষই জীবনে সফলতা অর্জন করতে চান এবং স্বচ্ছলভাবে জীবন-যাপন করতে চান। মাসের শেষে টাকা উপার্জন করাটাই বেশিরভাগ মানুষের জীবনে প্রধান ও মূল লক্ষ্য। ভারতের রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের কর্ণধার মুকেশ আম্বানি।রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজের কর্ণধার হিসেবে তিনি বছরে বেতন পান ১৫ কোটি রুপি। বাংলাদেশি টাকায় যা প্রায় ১৮ কোটি ২৬ লাখ টাকা। গত ১০ বছরেও ভারতের এই অন্যতম ধনী ব্যক্তি তার বেতন বাড়াননি। অন্যদিকে দেশটির টেক মাহিন্দ্রা গ্রুপের চেয়ারম্যান সি পি গুরনানি বার্ষিক বেতন পান ১৪৬.১৯ কোটি রুপি। বাংলাদেশি টাকায় যা প্রায় ১৭৭ কোটি ৮১ লাখ টাকা। 

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য ইকোনমিক টাইমসের এক প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, সি পি গুরনানি গত পাঁচ বছরে বেতন পেয়েছেন প্রায় ৬২১ কোটি টাকা। তার অবস্থানে রয়েছে এমন নয়টি প্রতিষ্ঠানের প্রধান নির্বাহীর চেয়ে গুরনানির বেতন প্রায় ২৪ শতাংশ বেশি। ইনফোসিস, টিসিএসবা ও এইচসিএলের প্রধান নির্বাহীরা গত পাঁচ বছরের হিসেবে মোট বেতন পান ৪৭০ কোটি ৭৫ লাখ টাকা। ওই হিসেবে গুরনানি একাই পেয়েছেন ৬২১ কোটি টাকা।

একই সময় টেক মাহিন্দ্রার ভাইস চেয়ারম্যান বিনীত নায়ার গত পাঁচ বছরে পেয়েছেন ৩৬৩ কোটি ১৩ লাখ রুপি। বাংলাদেশি টাকায় যা ৪৪২ কোটি ২৩ লাখ টাকা। টেক মাহিন্দ্রার শীর্ষ এই দুই কর্মকর্তা শেষ পাঁচ বছরে বেতন বাবদ পেয়েছেন ১০৬৩ কোটি টাকারও বেশি। 

প্রিয় অর্থনীতি/আশরাফ/গোরা 

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...