খালেদ মাহমুদ সুজন ও মাশরাফি বিন মুর্তজা। ছবি: সংগৃহীত

হৃদয় দিয়ে দেশের জন্য খেলার কথাই কি বলছিলেন মাশরাফি

অধিনায়কের কথাগুলো অবশ্য মাঠ কিংবা টেলিভিশন ক্যামেরা কোথাও শোনা যায়নি। তবে তার দেওয়া বার্তাটা ছড়িয়েছে ভালোভাবেই।

মুশাহিদ
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৯:১৮ আপডেট: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৯:১৮
প্রকাশিত: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৯:১৮ আপডেট: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৯:১৮


খালেদ মাহমুদ সুজন ও মাশরাফি বিন মুর্তজা। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) ১৭ ওয়ানডেতে লিটন দাসের মোট রান ২২৫। নেই কোনো হাফ সেঞ্চুরির দেখা। ১৮তম ম্যাচে এসে ঘুচল সেই আক্ষেপ। তুলে নিলেন ওয়ানডে ক্যারিয়ারের প্রথম হাফ সেঞ্চুরি। সেটাও কিনা এশিয়া কাপের ফাইনালে ভারতের বিপক্ষে!

২৮ সেপ্টেম্বর, শুক্রবার ৩৩ বলে ৬ চার ও ২ ছয়ে প্রথম হাফ সেঞ্চুরির দেখা পান ডানহাতি এই ওপেনার। হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করার পর ব্যাট জাগিয়ে উদযাপন করেন লিটন, ড্রেসিংরুমের সামনে দাঁড়িয়ে তাকে করতালি দিয়ে অভিনন্দন জানান অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। পাশে দাঁড়িয়ে দলের ম্যানেজার খালেদ মাহমুদ সুজন।

এরপর হঠাৎ করেই চিৎকার করে যেন কিছু একটা বললেন মাশরাফি, দুই হাত প্রসারিত করে কিছু একটা ইশারা করলেন। অধিনায়কের কথাগুলো অবশ্য মাঠ কিংবা টেলিভিশন ক্যামেরা কোথাও শোনা যায়নি। তবে তার দেওয়া বার্তাটা ছড়িয়েছে ভালোভাবেই।

দুই হাত প্রসারিত করে যেন মাশরাফি বলছিলেন, ‘লম্বা সময় ধরে খেলো।’ আর ব্যাজে আঙুল দিয়ে যেন দেশপ্রেমের সংকেত দিচ্ছিলেন। বুকের বাম পাশে মুষ্টি চেপে যেন বোঝাতে চাইলেন, হৃদয় দিয়ে দেশের জন্য খেলার কথা।

অধিনায়কের বার্তা যে ভালোভাবেই মাঠ পর্যন্ত পৌঁছে গেছে, তার প্রমাণ উদ্বোধনী জুটিতে লিটন-মিরাজের ১২০ রানের জুটি। এশিয়া কাপের এবারের আসরে উদ্বোধনী জুটিতে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ রান ছিল ১৬। দুই ম্যাচে উদ্বোধনী জুটি থেকে আসে ১৫ রান করে। বাকি দুই ম্যাচে এসেছে যথাক্রমে ১ ও ৫ রান।

প্রিয় খেলা/আজহার

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

আহা, জয় এত মধুর!

প্রিয় ২ দিন, ৩ ঘণ্টা আগে

loading ...