চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর জাতীয় পতাকা হাতে বাংলাদেশি কিশোরদের উল্লাস। ছবি: সংগৃহীত

অনূর্ধ্ব-১৫ সাফে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ

ফাইনালের মঞ্চেও দেখা গেল একই চিত্র।

মুশাহিদ
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ০৩ নভেম্বর ২০১৮, ১৮:৩৬ আপডেট: ০৩ নভেম্বর ২০১৮, ১৮:৩৬
প্রকাশিত: ০৩ নভেম্বর ২০১৮, ১৮:৩৬ আপডেট: ০৩ নভেম্বর ২০১৮, ১৮:৩৬


চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর জাতীয় পতাকা হাতে বাংলাদেশি কিশোরদের উল্লাস। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) দুইদিন আগেই সেমিফাইনালের মঞ্চে টাইব্রেকারে ভারতকে হারিয়েছে বাংলাদেশ। টাইব্রেকারে ভারতের বিপক্ষে ৪-২ গোলের জয়ে নিশ্চিত হয় ফাইনালের টিকেট। ফাইনালের মঞ্চেও দেখা গেল একই চিত্র। ১-১ সমতায় শেষ হয় নির্ধারিত সময়ের খেলা।

এরপর ম্যাচ গড়ায় টাইব্রেকারে। সেখানে পাকিস্তানকে ৩-২ ব্যবধানে হারিয়ে সাফ অনূর্ধ্ব-১৫ চ্যাম্পিয়নশিপে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করল বাংলাদেশের কিশোররা।

শিরোপার সঙ্গে ফেয়ার প্লে অ্যাওয়ার্ডও জিতেছে বাংলাদেশ। প্রতিযোগিতার সর্বোচ্চ গোলদাতাও হয়েছেন বাংলাদেশের নিহাদ। তিনি ৪টি গোল করেছেন।

এদিনও বাংলাদেশের জয়ের নায়ক গোলরক্ষক মেহেদী হাসান। টাইব্রেকারে তিনটি দুর্দান্ত সেভ করেন তিনি। তার নৈপুণ্যে দ্বিতীয়বারের মতো শিরোপা ঘরে তুলল বাংলাদেশি কিশোররা। এর আগে সেমিফাইনালে গেল আসরের চ্যাম্পিয়ন ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশের জয়ের নায়ক ছিলেন মেহেদী। সেদিন টাইব্রেকারে দুটি দুর্দান্ত সেভ করেছিলেন তিনি।

সাফ অনূর্ধ্ব-১৫ চ্যাম্পিয়নশিপের শুরু থেকেই উড়ছে বাংলাদেশ। মালদ্বীপকে ৯-০ গোলে উড়িয়ে টুর্নামেন্টে উড়ন্ত সূচনা পাওয়ার পর গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে বাংলাদেশ হারায় স্বাগতিক নেপালকে। সেই ম্যাচে ১০ জনের দল নিয়েও নেপালকে ২-১ গোলে হারিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে সেমিফাইনালে পা রাখে বাংলাদেশ।

দাপটের সঙ্গে গ্রুপ পর্ব পেরোনোর পর সেমিফাইনালেও বজায় থাকল বাংলাদেশি কিশোরদের দাপট। সেই দাপটের সামনে পাত্তা পায়নি শক্তিশালী ভারতও। বৃহস্পতিবার দিনের প্রথম সেমিফাইনালে ভারতকে টাইব্রেকারে হারিয়ে ফাইনালের টিকেট নিশ্চিত করে বাংলাদেশ। ফাইনালে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ছিল দ্বিতীয় সেমিফাইনালে নেপালকে হারানো পাকিস্তান।

কিশোরদের লড়াইয়ে ২০১৫ সালে প্রথমবারের মতো শিরোপা জিতেছিল বাংলাদেশ। তখন অবশ্য টুর্নামেন্ট ছিল অনূর্ধ্ব-১৬ বছর বয়সী কিশোরদের নিয়ে। এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের সঙ্গে সঙ্গতি রাখার জন্য ২০১৭ সাল থেকে টুর্নামেন্টটি অনূর্ধ্ব-১৫ বছর বয়সীদের নিয়ে হচ্ছে।

প্রিয় খেলা/শান্ত  

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...