বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে নগরীর ধরমপুর এলাকায় সোহেলকে কুপিয়ে আহত করে দুর্বৃত্তরা। ছবি: প্রিয়.কম

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রহরীকে কোপাল দুর্বৃত্তরা

প্রক্টর ড. লুৎফর রহমান বলেন, ‘সেই ঘটনায় জড়িতদের আইনের আওতায় নিয়ে আসার জন্য চেষ্টা চালাচ্ছি।’

আকরাম হোসাইন
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়
প্রকাশিত: ০৪ নভেম্বর ২০১৮, ২২:২৮ আপডেট: ০৪ নভেম্বর ২০১৮, ২২:২৮
প্রকাশিত: ০৪ নভেম্বর ২০১৮, ২২:২৮ আপডেট: ০৪ নভেম্বর ২০১৮, ২২:২৮


বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে নগরীর ধরমপুর এলাকায় সোহেলকে কুপিয়ে আহত করে দুর্বৃত্তরা। ছবি: প্রিয়.কম

(প্রিয়.কম) রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) চতুর্থ শ্রেণির এক কর্মচারীকে চাপাতি দিয়ে কুপিয়েছে সন্ত্রাসীরা। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (রামেক) ভর্তি করা হয়েছে। তবে এ ঘটনায় জড়িতদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি।

৩ নভেম্বর, শনিবার রাতে সাড়ে ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে নগরীর ধরমপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত সোহেল রানা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টুয়ার্ড শাখার (মাস্টাররোল) প্রহরী।

সোহেল রানা জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ে দায়িত্ব পালন শেষে বাড়ি ফিরছিলেন তিনি। ওই সময় কয়েকজন তার পথরোধ করে মোবাইল ও টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। টাকা দিতে অস্বীকৃতি জানালে সন্ত্রাসীরা চাপাতি দিয়ে আঘাত করে পালিয়ে যায়। চাপাতির আঘাতে তার ঘাড়ে ও হাতে গুরুতর জখম হয়েছে। পরে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (রামেক) ভর্তি করা হয়।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. লুৎফর রহমান বলেন, ‘ধরমপুরের কর্মচারীর ওপর হামলা চালিয়ে গুরুতর আহত হওয়ার ঘটনাটি শুনেছি। সেই ঘটনায় জড়িতদের আইনের আওতায় নিয়ে আসার জন্য চেষ্টা চালাচ্ছি।’

নগরীর মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহাদাত হোসেন জানান, ‘এ ঘটনায় লিখিত কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

প্রিয় সংবাদ/নোমান/শান্ত