বিভিন্ন কারণে কান্না করতে পারে একটি শিশু। ছবি: সংগৃহীত

শিশুর কান্না থামানোর ৩টি কৌশল

সবসময় বাবা-মা বুঝতে পারেন না কেন কাঁদছে শিশু। তার আরামের সব ব্যবস্থা করার পরেও সে কাঁদতে থাকে। এমন সময়ে তাকে শান্ত করতে কিছু উপায় কাজে আসতে পারে।

কে এন দেয়া
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ২১ জানুয়ারি ২০১৯, ১৩:১৫ আপডেট: ২১ জানুয়ারি ২০১৯, ১৩:১৫
প্রকাশিত: ২১ জানুয়ারি ২০১৯, ১৩:১৫ আপডেট: ২১ জানুয়ারি ২০১৯, ১৩:১৫


বিভিন্ন কারণে কান্না করতে পারে একটি শিশু। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) শিশুরা নতুন বাবা-মায়ের জীবনে আশীর্বাদ হয়ে আসে বটে। কিন্তু একটি সময়ে সব বাবা-মা অতিষ্ঠ হয়ে পড়েন, আর সে সময়টি হলো, সন্তান যখন কান্না শুরু করে। শিশু ক্ষুধা পেলে কান্না করে, ঘুম পেলে কান্না করে, ডায়াপার নষ্ট করে ফেললে কান্না করে, বাবা-মাকে দেখতে না পেলে কান্না করে। এ ছাড়া কোনো কারণে অস্বস্তি বোধ করলেও কান্না করে। সবসময় বাবা-মা বুঝতে পারেন না কেন কাঁদছে শিশু। তার আরামের সব ব্যবস্থা করার পরেও সে কাঁদতে থাকে। এমন সময়ে তাকে শান্ত করতে কিছু উপায় কাজে আসতে পারে-

১) অপ্রত্যাশিত কোনো উপকরণ

বাচ্চাকে শান্ত রাখার উপায় খোঁজেন সব বাবা-মা। তারা অনেক খেলনা কিনে ঘর ভরিয়ে ফেলেন, ভাবেন এর কোনোটা হয়তো শিশুকে শান্ত করতে পারবে। আসলে কিন্তু শিশুর কান্না থামাতে অপ্রত্যাশিত কিছু জিনিস কাজ করে। ‘উইয়ার্ড প্যারেন্টিং উইনস’ বইতে এক দম্পতি জানায়, এক রাতে কিছুতেই শিশুর কান্না থামছিল না। সে সময়ে বাবা একটি ইলেকট্রিক টুথব্রাশ চালিয়ে দেন এবং শিশুর সামনে নাড়াতে থাকেন। এর শব্দে সাথে সাথেই শিশু ঘুমিয়ে পড়ে। তবে তাদের অন্য শিশুর ক্ষেত্রে অবশ্য কান্না থামাতে টুথব্রাশ কোনো কাজেই আসেনি।

২) ঘরের বিভিন্ন যন্ত্র পরীক্ষা করে দেখুন

প্রথম গল্পটিতে শিশু শান্ত হয়ে গেল কেন? হয়তোবা ইলেকট্রিক টুথব্রাশের শব্দটা শুনে! আপনার শিশুও হয়তো তেমন কোনো শব্দ শুনলে শান্ত হয়ে যাবে। ওই বইটিতে আরও একজোড়া বাবা-মা জানান, তাদের বন্ধুর বাচ্চা ডিশওয়াশারের শব্দে কান্না থামিয়ে দেয়। তারাও নিজেদের বাচ্চাকে কী শব্দ শুনিয়ে কান্না থামানো যায় তা পরখ করতে থাকেন। দেখা যায়, ওভেনের ওপরে থাকা ফ্যানটির শব্দে তাদের শিশু কান্না থামিয়ে ফেলে এমনকি ঘুমিয়ে যায়।

৩) মজার কিছু করুন

শিশুকে কোনোভাবেই শান্ত করতে পারছেন না? কোনো উপায়ই কাজ করছে না? তাহলে মজার কিছু করুন। তার সামনে গলা খুলে গান গাওয়া শুরু করুন বা নাচা শুরু করুন। অনেক বাচ্চার মনোযোগ কান্না থেকে সরে যায় এমন কাজ করলে।

তবে মনে রাখবেন, প্রতিটি শিশুই আলাদা। একটি শিশুকে যে গান শুনিয়ে শান্ত করবেন, অন্য শিশুটি একই গান শুনে ভয়ে আরও বেশি কান্না করতে পারে।  তাই সব ধরনের উপায়ই পরখ করে দেখতে পারেন।

সূত্র: গুড হাউজকিপিং

প্রিয় লাইফ/ আর বি /রুহুল