বিপিএলের ব্যস্ততা শেষে পার্বত্য জেলা বান্দরবানে মুমিনুল। ছবি: সংগৃহীত

বান্দরবানে মুমিনুলের ব্যাচেলর ট্রিপ

আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ক্রিকেটে ব্যস্ততা না থাকায় নিজেদের মতো ঘুরে বেড়াচ্ছেন দেশি ক্রিকেটাররা।

মুশাহিদ
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৯:৫৩ আপডেট: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৯:৫৩
প্রকাশিত: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৯:৫৩ আপডেট: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৯:৫৩


বিপিএলের ব্যস্ততা শেষে পার্বত্য জেলা বান্দরবানে মুমিনুল। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে সিলেট সিক্সার্সকে ৫ উইকেটে হারিয়ে শেষ চারের আশাটা বাঁচিয়ে রেখেছিল রাজশাহী কিংস। সিলেটের বিপক্ষে জয়ে ঢাকা ডায়নামাইটসকে টপকে পয়েন্ট টেবিলের চতুর্থ স্থানেও উঠে এসেছিল মেহেদী হাসান মিরাজের দল। কিন্তু শেষ ম্যাচে খুলনা টাইটান্সের বিপক্ষে ঢাকার জয়ে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল)) গ্রুপ পর্ব থেকে ছিটকে পড়তে হয়েছে রাজশাহীকে।

বিপিএলের ব্যস্ততা শেষে ইতোমধ্যেই দেশে ফিরে গেছেন রাজশাহীর বিদেশি ক্রিকেটাররা। আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ক্রিকেটে তেমন ব্যস্ততা না থাকায় দেশি ক্রিকেটাররাও ঘুরে বেড়াচ্ছেন নিজেদের মতো। এদের মধ্যে মুমিনুল হক ছুটে গেছেন পার্বত্য জেলা বান্দরবানে।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এক পোস্টের মাধ্যমে বান্দরবানে ঘুরে বেড়ানোর খবরটি জানিয়েছেন মুমিনুল নিজেই। রবিবার ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট থেকে দুটি ছবি পোস্ট করেন জাতীয় দলের বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। দুটি ছবিই বান্দরবানের বিখ্যাত স্বর্ণমন্দিরের সামনে তোলা। ছবির ক্যাপশনে মুমিনুল লেখেন, ‘বাংলাদেশ তুমি খুবই সুন্দর। ব্যাচেলর ট্রিপ।’

বিপিএলের ইতিহাসে কনিষ্ঠতম অধিনায়ক মিরাজের নেতৃত্বে মাঝারি মানের দল নিয়েও এবারের আসরে বিশেষভাবে নজর কাড়ে রাজশাহী। কিন্তু মৌসুমটা ভালো যায়নি মুমিনুলের। ১২ ম্যাচের মধ্যে ৮টিতে খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান।

৮ ম্যাচেও সেভাবে হাসেনি মুমিনুলের ব্যাট। এই ৮ ম্যাচের মধ্যে ৭ ইনিংসে ব্যাট হাতে করেছেন মাত্র ৮৫ রান। তার সর্বোচ্চ ইনিংসটি ছিল ৪৪ রানের। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ইনিংসটি ১৪ রানে। বাকি ৫ ম্যাচে ২ অঙ্কের রানও স্পর্শ করতে পারেননি তিনি।

প্রিয় খেলা/রুহুল

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...