সরফরাজ আহমেদের নেতৃত্বেই চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জিতেছিল পাকিস্তান। ছবি: সংগৃহীত

সরফরাজের অধীনে ‘খেলতে চান না’ পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা

নিষেধাজ্ঞা শেষে সরফরাজ আদৌ অধিনায়কত্ব ফিরে পাবেন কিনা, তা নিয়ে দেখা দিয়েছে শঙ্কা।

সৌরভ মাহমুদ
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৫:৫৮ আপডেট: ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৫:৫৮
প্রকাশিত: ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৫:৫৮ আপডেট: ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৫:৫৮


সরফরাজ আহমেদের নেতৃত্বেই চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জিতেছিল পাকিস্তান। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) দক্ষিণ আফ্রিকার অলরাউন্ডার আন্দিলে ফেলুকওয়ায়োকে বর্ণবাদী মন্তব্য করে চার ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। সিরিজের মাঝপথে দেশে ফিরিয়ে নেওয়া হয়েছে তাকে। সরফরাজের পরিবর্তে অভিজ্ঞ অলরাউন্ডার শোয়েব মালিকের কাঁধে তুলে দেওয়া হয়েছে নেতৃত্বভার।

আর এতেই ঘটেছে বিপত্তি। গুজব উঠেছে, শোয়েব মালিকের অধীনে খেলতে পেরে ক্রিকেটাররা বেশি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছেন। তাই তারা আর অধিনায়ক হিসেবে সরফরাজকে চান না। এই গুজবে আরও ডালপালা ছড়ালে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) জানায়, পিএসএল শেষে বিশ্বকাপের অধিনায়ক নির্বাচন করা হবে।

সবমিলিয়ে নিষেধাজ্ঞা শেষে সরফরাজ আদৌ অধিনায়কত্ব ফিরে পাবেন কিনা, তা নিয়ে দেখা দিয়েছে শঙ্কা। তবে সরফরাজ নেতৃত্ব ফিরে পাওয়ার ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী। শুধু তাই নয়, তার অধীনে খেলতে না চাওয়ার বিষয়টি উড়িয়ে দিয়েছেন তিনি। বলেছেন, এটা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন ও গুজব।

এ নিয়ে সরফরাজের ভাষ্য, ‘যারা শোয়েব ভাইয়ের নেতৃত্বে খেলেছে তারা আমার অধীনে খেলবে না, এটা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন কথা। এমনটা হতেই পারে না। ছেলেরা খুবই ভালো এবং তারা একে অন্যকে সহযোগিতা করে থাকে। তারা এভাবে ভাবতেই পারে না। আমি আশাবাদী বিশ্বকাপে পাকিস্তানকে আমিই নেতৃত্ব দেবো।’

সিরিজের মাঝপথে দেশে ফেরানো নিয়েও সমালোচনা হয়। এ নিয়েও মুখ খুলেছেন তিনি। সরফরাজের ভাষ্য, ‘আমি দেশে ফিরে এসেছি কারণ আমার নিষেধাজ্ঞা চার ম্যাচের। শেষ একটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচের জন্য শুধু শুধু সেখানে বসে থেকে তো লাভ নেই। দল দেশে ফিরেই পিএসএলে যোগ দেবো। তাই আমি একটু আগে ফিরেছি, যাতে পিএসএল শুরুর আগে আমি নিজেকে কিছুটা সময় দিতে পারি।’

প্রিয় খেলা/রিমন

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...