প্রতীকী ছবি

ওটিপির সমস্যা সমাধানে বিটিআরসিকে এগিয়ে আসার আহ্বান রবির

এমএনপি সেবা চালু হওয়ার পর এখন পর্যন্ত একটি মাত্র করপোরেট প্রতিষ্ঠান সফলভাবে এমএনপি সেবা নিতে পেরেছে।

রাকিবুল হাসান
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৮:২৬ আপডেট: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৮:২৬
প্রকাশিত: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৮:২৬ আপডেট: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৮:২৬


প্রতীকী ছবি

(প্রিয়.কম) নম্বর একই রেখে অপারেটর বদল বা মোবাইল নম্বর পোর্টেবিলিটি (এমএনপি) সেবা গ্রহণে গ্রাহকদের সাড়া মিললেও সমস্যায় পড়তে হচ্ছে ওয়ান টাইম পাসওয়ার্ড বা ওটিপি সেবা গ্রহীতাদের।

এই সমস্যা সমাধানে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছে মোবাইল অপারেটর রবি

১৪ ফেব্রুয়ারি, বৃহস্পতিবার সংবাদমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে এ আহ্বান জানান রবির হেড অব করপোরেট অ্যান্ড রেগুলেটরি অ্যাফেয়ার্স সাহেদ আলম।

বিবৃতিতে তিনি বলেন, ‘করপোরেট গ্রাহকদের এমএনপি সেবা গ্রহণে এখনো বড় ধরনের জটিলতা রয়ে গেছে। এমএনপি সেবা চালু হওয়ার পর এখন পর্যন্ত একটি মাত্র করপোরেট প্রতিষ্ঠান সফলভাবে এমএনপি সেবা নিতে পেরেছে। ব্যাংকের ওটিপি সেবা পেতেও সমস্যায় পড়ছেন এমএনপি সেবা নেওয়া অনেক গ্রাহক। আমরা আশা করি নিয়ন্ত্রক সংস্থা এ সব সমস্যা সমাধানে উদ্যোগ নেবে।’

নম্বর একই রেখে অপারেটর বদল বা মোবাইল নম্বর পোর্টেবিলিটি (এমএনপি) সেবা চালুর পর গত চার মাসে (২০১৮ সালের অক্টোবর থেকে ২০১৯ সালের জানুয়ারি পর্যন্ত) সংখ্যার হিসাবে বেশি গ্রাহক পেয়েছে রবি। বৃহস্পতিবার বিটিআরসি প্রকাশিত এক পরিসংখ্যানে এ তথ্য তুলে ধরা হয়।

পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত চার মাসে রবিতে যোগ দিয়েছেন ৯৩ হাজার ৮২৮ জন। এ ছাড়া বাংলালিংকে ২৫ হাজার ৬১৫ জন, গ্রামীণফোনে ১২ হাজার ৩৪৬ জন ও টেলিটকে দুই হাজার দুইজন গ্রাহক এমএনপি সেবার মাধ্যমে যোগ দিয়েছেন।

রবিতে বেশি গ্রাহক আসার কারণ হিসেবে সাহেদ আলম বলেন, ‘আমাদের নেটওয়ার্ক ও সেবার মান প্রতিযোগীদের চেয়ে অনেক উন্নত হওয়ার কারণেই এমএনপির মাধ্যমে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক গ্রাহক রবিকে বেছে নিয়েছেন বলে আমরা মনে করি। গ্রাহকের আস্থার প্রতিদান দিতে নেটওয়ার্ক ও সেবার মান ধরে রাখতে আমরা দীর্ঘমেয়াদে বিনিয়োগ করেছি এবং ভবিষ্যতেও তা অব্যাহত থাকবে।’

প্রিয় প্রযুক্তি/রিমন

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...