সানস্ক্রিন আসলে বছরের পর বছর ভালো থাকে না। ছবি: সংগৃহীত

কী করে বুঝবেন সানস্ক্রিন নষ্ট হয়ে গেছে

নষ্ট সানস্ক্রিন ব্যবহারে ত্বক পুড়ে যেতে পারে, তেমনি হতে পারে ব্রণের উপদ্রব।

কে এন দেয়া
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১:২০ আপডেট: ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১:২০
প্রকাশিত: ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১:২০ আপডেট: ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১:২০


সানস্ক্রিন আসলে বছরের পর বছর ভালো থাকে না। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) শীত চলে গিয়ে আবার আসছে চড়া রোদের দিন। এই মৌসুমে মাঝে মাঝে বৃষ্টি হলেও বেশিরভাগ সময়ে রোদের আঁচ বেশিই থাকবে, তাই নিয়মিত ব্যবহার করতে হবে সানস্ক্রিন। কিন্তু তাই বলে গত বছরের সানস্ক্রিনের বোতলটা বের করে ব্যবহার শুরু করবেন না। কারণ সানস্ক্রিন আসলে বছরের পর বছর ভালো থাকে না, তা নষ্ট হয়ে যেতে পারে কয়েক মাস পরেই। আর এই নষ্ট সানস্ক্রিন ব্যবহারে আপনার ত্বকে দেখা দিতে পারে যন্ত্রণাদায়ক সানবার্ন অথবা ব্রণের সমস্যা।

সানস্ক্রিন যত পুরোনো হয়, তার কার্যকারিতা ততই কমে যায় অর্থাৎ সূর্যের আলো থেকে আপনাকে তা বাঁচাতে পারে না। এ কারণে ত্বক পুড়ে যায়। এ ছাড়া সানস্ক্রিন যতবার ব্যবহার করা হয় ততবারই এর কৌটা বা টিউবে ব্যাকটেরিয়া প্রবেশ করে। তাই গত বছরের ব্যাকটেরিয়া-ভর্তি সানস্ক্রিন ব্যবহার করলে আপনার ত্বক ব্রণে ভরে যেতে পারে।

তবে সানস্ক্রিন ভালো আছে না নষ্ট হয়ে গেছে তা বোঝা খুবই সহজ। অন্যান্য লোশন বা ক্রিমের মতো সানস্ক্রিন লোশনেও মেয়াদ লেখা থাকে। এই মেয়াদ দেখলেই বুঝবেন কতদিন তা ব্যবহার করা যাবে। এ ছাড়া সানস্ক্রিনের রঙ ও ঘনত্ব পাল্টালেও তা নষ্ট বলে ধরে নিতে হবে। এক বছরের পুরোনো সানস্ক্রিন ফেলেই দেওয়া উচিত। কারণ এ সময়ের মাঝে সানস্ক্রিন অকার্যকর হয়ে পড়ে। এ ছাড়া সানস্ক্রিন মেখে রোদে গেলেও ২ ঘণ্টা পর তা আর সূর্যের আলো থেকে আপনাকে রক্ষা করতে পারে না। এ কারণেই ২ ঘণ্টার বেশি সময় রোদে থাকলে নতুন করে সানস্ক্রিন মাখা উচিত।

সূত্র: গুড হাউজকিপিং

প্রিয় লাইফ/আশরাফ

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...