সরিষার তেল অথবা ক্যানোলা অয়েল স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। ছবি: সংগৃহীত

ক্যানোলা অয়েল কী, কেন তা রান্নায় ব্যবহার করবেন?

কানাডায় সরিষার তেলকে পরিশুদ্ধ করে তৈরি করা তেলটির নাম দেওয়া হয়েছে ক্যানোলা অয়েল, যার মানে হলো ‘কানাডার তেল’। দৈনন্দিন রান্নায় সরিষার তেল ও ক্যানোলা অয়েল ব্যবহারের বেশকিছু উপকারিতা রয়েছে।

কে এন দেয়া
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ২৫ মার্চ ২০১৯, ০৮:৫১ আপডেট: ২৫ মার্চ ২০১৯, ০৮:৫১
প্রকাশিত: ২৫ মার্চ ২০১৯, ০৮:৫১ আপডেট: ২৫ মার্চ ২০১৯, ০৮:৫১


সরিষার তেল অথবা ক্যানোলা অয়েল স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম)  সয়াবিন তেল, অলিভ অয়েল, সূর্যমুখীর তেল- এমন বেশকিছু তেল এখন বাজারে পাওয়া যায়। সম্প্রতি স্বাস্থ্যকর তেলের তালিকায় যুক্ত হয়েছে ক্যানোলা অয়েল। এটা কিন্তু ক্যানোলা নামের কোনো গাছের তেল নয়। বরং কানাডায় সরিষার তেলকে পরিশুদ্ধ করে তৈরি করা তেলটির নাম দেওয়া হয়েছে ক্যানোলা অয়েল, যার মানে হলো ‘কানাডার তেল’। দৈনন্দিন রান্নায় সরিষার তেল ও ক্যানোলা অয়েল ব্যবহারের বেশকিছু উপকারিতা রয়েছে।

  • ক্যানোলা অয়েলে বেশি পরিমাণে মনোআনস্যাচুরেটেড ফ্যাটি এসিড আছে যা পেটের মেদ কমাতে কাজে আসে। যারা ডায়াবেটিস এবং ওবেসিটিতে ভুগছেন তাদের জন্য এই তেল উপকারী।
  • এই তেলে থাকা ওমেগা ৩ ফ্যাটি এসিড মস্তিষ্কের জন্য খুবই দরকারী। তা স্নায়ুতন্ত্রকে ভালো রাখে, ডিপ্রেশন ও অ্যাংজাইটি কমিয়ে আনে।
  • ক্যানোলা অয়েলে স্যাচুরেটেড ফ্যাট থাকে ৭ শতাংশেরও কম। এ কারণে যাদের কোলেস্টেরল বেশি বা হৃদরোগ আছে তাদের জন্য এটা উপকারী।
  • ক্যানোলা অয়েলে ভিটামিন ই থাকে বেশি পরিমাণে, যা একটি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট।

ক্যানোলা অয়েল বাড়ির সাধারণ রান্না যেমন ভাজা, সেঁকা, বেকিং, সালাদ তৈরি বা তরকারি রান্নায় ব্যবহার করা যায়। ক্যানোলা অয়েলে রান্না করা খাবার সহজে হজম হয় ও তা খাওয়ার পর শরীর হালকা লাগে। তবে অন্যান্য তেল ব্যবহার একেবারে বাদ দিয়ে দেবেন না। এর পাশাপাশি অন্যান্য তেলও ব্যবহার করুন।

সূত্র: এনডিটিভি

প্রিয় লাইফ/রুহুল

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

loading ...