সুইজারল্যান্ডের একদল গবেষকরা কুকুরের লোম এবং দাড়ি নিয়ে জরিপ চালিয়েছিলেন। ছবি: সংগৃহীত

গবেষণা: কুকুরের লোমের চেয়েও নোংরা পুরুষের দাড়ি

এমন তথ্য পাওয়া গেছে সাম্প্রতিক এক গবেষণায়।

কে এন দেয়া
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ২৫ এপ্রিল ২০১৯, ১৪:৪০ আপডেট: ২৫ এপ্রিল ২০১৯, ১৪:৪০
প্রকাশিত: ২৫ এপ্রিল ২০১৯, ১৪:৪০ আপডেট: ২৫ এপ্রিল ২০১৯, ১৪:৪০


সুইজারল্যান্ডের একদল গবেষকরা কুকুরের লোম এবং দাড়ি নিয়ে জরিপ চালিয়েছিলেন। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) পুরুষদের মাঝে দাড়ির এক বিশেষ কদর রয়েছে। এমনকি পুরুষের ফ্যাশনেও গত কয়েক বছরে দাড়ি বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। তবে দাড়ি রাখতে পছন্দ করলেও তা পরিষ্কার রাখার বিষয়ে অনেকেরই অনীহা দেখা যায়। সুইজারল্যান্ডের ছোট একটি গবেষণায় দেখা গেছে, পোষা কুকুরের লোমের চেয়েও নোংরা হতে পারে পুরুষের দাড়ি।

ইউরোপিয়ান রেডিওলজি জার্নালে প্রকাশিত হয় সুইজারল্যান্ডের হার্সল্যান্ডেন ক্লিনিকের এই গবেষণা। গবেষকরা ১৮ জন পুরুষের দাড়ি ও ৩০টি কুকুরের গলার লোম থেকে জীবাণুর নমুনা সংগ্রহ করেন। এর পাশাপাশি এমআরআই স্ক্যানার ব্যবহার করা হয় ও এই স্ক্যানারে মানুষ ও কুকুর থেকে কী পরিমাণ জীবাণুর সংক্রমণ হয় তার নমুনা নেওয়া হয়।

মজার ব্যাপার হলো, এই গবেষণায় উদ্দেশ্য ছিল একই এমআরআই স্ক্যানার মানুষ ও কুকুর উভয়ের জন্য ব্যবহার করলে এতে মানুষের স্বাস্থ্যে কোনো নেতিবাচক প্রভাব পড়বে কিনা। কিন্তু তা করতে গিয়ে দাড়ি রাখার না-জানা বিপদ ফাঁস হয়ে গেছে। গবেষণায় দেখা যায়, কুকুর নয়, বরং মানুষের দাড়িতেই বেশি জীবাণু থাকে। ১৮ জনের প্রত্যেকের দাড়িতেই প্রচুর জীবাণু ছিল, অন্যদিকে ৩০টি কুকুরের ২৩টির লোমে উচ্চ পরিমাণে ও ৭টি লোমে মাঝারি পরিমাণে জীবাণু ছিল।  

শুধু তাই নয়, ৭ জন পুরুষের দাড়িতে পাওয়া যায় মানুষের রোগ তৈরি করতে পারে এমন জীবাণু, যেমন ইন্টারোকক্কাস ফেকালিস ও স্ট্যাফাইলোকক্কাস অরিয়াস। অন্যদিকে ৩০টি কুকুরের মাঝে মাত্র ৪টির লোমে এসব জীবাণু দেখা যায়।  

গবেষণার এক পর্যায়ে মন্তব্য করা হয়, গবেষণার ফলাফলের ভিত্তিতে, দাড়িওয়ালা পুরুষের তুলনায় কুকুরকে ‘পরিষ্কার’ বিবেচনা করা যাবে।

তারমানে অবশ্য এই নয় যে দাড়ি মানেই নোংরা। পৃথিবীতে প্রায় ১ ট্রিলিয়ন প্রজাতির ব্যাকটেরিয়া আছে এবং এগুলো পৃথিবীর প্রায় সর্বত্র বিরাজমান। মানুষের দেহও এর ব্যতিক্রম নয়। মানুষের শরীরে প্রচুর জীবাণু থাকে। শুধু ত্বকেই থাকতে পারে হাজারখানের প্রজাতির ব্যাকটেরিয়া। তবে দৈনন্দিন জীবনে হাত যতটা ময়লা হয়, দাড়িও তেমনই ময়লা হতে পারে। এ কারণে দাড়ি নিয়মিত পরিষ্কার রাখার অভ্যাস করা উচিত।

সূত্র: আইএফএলসায়েন্স

প্রিয় লাইফ/আশরাফ

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

প্রিয় টিপস: ২৭ মে, ২০১৯

প্রিয় ২ ঘণ্টা, ৫০ মিনিট আগে

loading ...