ছবিটি প্রতীকী, ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

ঈদের পোশাক কেনাকাটায় অবশ্যই মনে রাখুন এই ১০টি গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার

ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গেছে ঈদের কেনাকাটার ধুম। বছরে মাত্র দুটি ঈদ, সবাই মন ভরে কেনাকাটা করবেন সেটাই স্বাভাবিক।

রুমানা বৈশাখী
বিভাগীয় প্রধান (প্রিয় লাইফ)
প্রকাশিত: ১৬ মে ২০১৯, ২১:৪১ আপডেট: ১৬ মে ২০১৯, ২১:৪২
প্রকাশিত: ১৬ মে ২০১৯, ২১:৪১ আপডেট: ১৬ মে ২০১৯, ২১:৪২


ছবিটি প্রতীকী, ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) দেখতে দেখতে চলে এসেছে ঈদুল ফিতর। ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গেছে ঈদের কেনাকাটার ধুম। বছরে মাত্র দুটি ঈদ, সবাই মন ভরে কেনাকাটা করবেন সেটাই স্বাভাবিক। কিন্তু তারপরেও কথা থেকে যায়। মন ভরে কেনার অর্থ অপচয় করা নয়, এমন জিনিস কেনাও নয়, যা আপনার প্রয়োজন নেই। তা ছাড়া কেবল সামর্থ্য আছে বলেই আপনি অর্থের অপচয় করবেন বিষয়টি সেটাও নয়।

আর তাই আজকের ফিচারে থাকছে এমন কিছু বিষয়, যা ঈদের কেনাকাটার সময়ে অবশ্যই মাথায় রাখা উচিত!

১। ঈদ মানে এলোপাতাড়ি কেনাকাটা নয়। বরং ঈদের শপিং নিয়েই বেশি প্ল্যান করা উচিত। কী কিনবেন, কার জন্যে কিনবেন ইত্যাদি আগে থেলেই লিস্ট করে নিন। আর সেই লিস্ট ধরেই কেনাকাটা করুন।

২। নিজের জন্যে কী কিনবেন বা কী পোশাক তৈরি করবেন, সেটাও প্ল্যান মাফিক করুন। চোখের দেখায় কিছু পছন্দ হলেই কিনে নিয়ে আসবেন না।

৩। শপিং শুরুর আগে জাকাত-ফিতরার জন্যে আনুমানিক কিছু টাকা আলাদা করে সরিয়ে রাখাই ভালো।

৪। ঈদ মানেই অন্যের সঙ্গে আনন্দ ভাগ করে নেওয়া। তাই নিজের সুবিধাবঞ্চিত আত্মীয়স্বজনের জন্যেও কেনাকাটা সেরে নিন অগ্রিম। কেননা পরে বেশি খরচ হয়ে গেলে এই মানুষগুলো তালিকা থেকে বাদ পড়ে যাবেন।

৫। একটি জিনিস কেনার আগে অবশ্যই কয়েকটি দোকানে সেটার মূল্য যাচাই করে কিনুন। কেননা ঈদের সময়ে মূল্য ৪/৫ গুণ পর্যন্ত বেড়ে যায়।

৬। পোশাক তৈরি করতে দিলে আগেই দিয়ে দিন। এর ফলে অগ্রিম ডেলিভারি পাবেন আর পোশাকে কিছু ভুল-ভ্রান্তি থাকলে তা ঠিক করার সুযোগ পাবেন, নতুন পোশাক কিনতে হবে না।

৭। পোশাক কিনতে হলে অবশ্যই ট্রায়াল দিয়ে দেখুন। ফেব্রিক ভালো করে যাচাই করে নিন। এতে অর্থের অপচয় কম হবে।

৮। অনেকেই এক ঈদের সময়ে সারা বছরের কাপড় কিনে ফেলেন। এই ভুলটি করবেন না। ঈদের সময়ে অকারণেই পোশাকের দাম বেশি থাকে। বরং ঈদের সময়ে কেনাই ভালো।

৯। ঈদের পোশাক কিনুন এমন, যা আপনি কিছুদিন ব্যবহার করতে পারবেন। কেবল এক ঈদের দিনেই পরবেন, এমন পোশাক কিনে অর্থনাশ করবেন না।

১০। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে, লোক দেখানোর জন্যে অহেতুক অধিক অর্থ দিয়ে পোশাক কিনবেন না। আপনি যে অর্থ অকারণেই নষ্ট করবেন, সেই অর্থ দিয়ে অনেক সুবিধাবঞ্চিত মানুষের ঈদের পোশাক হতে পারে।

ঈদ মানে খুশি, ঈদ মানে সবার সঙ্গে ভাগ করে নেওয়া আনন্দ। তাই কেবল নিজের ঈদের কথা না ভেবে একটু অন্যের কথাও ভাবা যেতেই পারে। সবাই মিলে সুন্দরভাবে ঈদ করতে পারলে তবেই না ঈদ!

প্রিয় লাইফ/আজাদ চৌধুরী

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

প্রিয় টিপস: ২০ জুন, ২০১৯

প্রিয় ৫ ঘণ্টা, ৪৬ মিনিট আগে

loading ...