ছবি সংগৃহীত

ঘুষ না দেওয়ায় গাড়ির ডিম রাস্তায় ‘ফেলে দিলো’ পুলিশ

পুলিশ সদস্যরা ক্ষিপ্ত হয়ে পিকআপে থাকা ডিমের খাঁচি বাঁধার রশি ছুরি দিয়ে কেটে দেয় বলে অভিযোগ।

মোক্তাদির হোসেন প্রান্তিক
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১৭ মে ২০১৯, ১২:২৮ আপডেট: ১৭ মে ২০১৯, ১২:২৯
প্রকাশিত: ১৭ মে ২০১৯, ১২:২৮ আপডেট: ১৭ মে ২০১৯, ১২:২৯


ছবি সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) নাটোরের বড়াইগ্রামে ঘুষ না দেওয়ায় পিকআপে থাকা পৌনে তিন লাখ টাকার ডিম রাস্তায় ফেলে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে বনপাড়া হাইওয়ে থানা পুলিশের বিরুদ্ধে। তবে বনপাড়া হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলিম হোসেন শিকদার রশি কেটে ডিম ফেলে দেওয়ার বিষয়টি সঠিক নয় দাবি করেছেন।

রাস্তায় পড়ে ভেঙে প্রায় সব ডিম নষ্ট হয়ে গেছে। এতে ডিমের মালিক সিরাজগঞ্জের কামারখন্দ উপজেলার বাসিন্দা বিপ্লব কুমার সাহার পথে বসার উপক্রম হয়েছে। ১৬ মে বৃহস্পতিবার ভোরে বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়কের আগ্রান সুতিপাড় এলাকায় ঘটনাটি ঘটে।

বৃহস্পতিবার ভোর রাতে বিপ্লব কুমার পিকআপযোগে ৩৫ হাজার একশ ডিম নিয়ে সিরাজগঞ্জের কামারখন্দ থেকে নাটোর যাচ্ছিলেন। পথে আগ্রান সুতিরপাড় এলাকায় পিকআপের চাকা পাংচার হয়ে গেলে সেটি পাশের ফিডার রোডে নেমে যায়। খবর পেয়ে বনপাড়া হাইওয়ে পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থলে আসে।

পিকআপের সঙ্গে থাকা লোকজন জানান, এ সময় পুলিশ সদস্যরা পিকআপ উদ্ধারের জন্য রেকার ভাড়াসহ ২০ হাজার টাকা ঘুষ দাবি করে। কিন্তু চালক এতে রাজি না হওয়ায় পুলিশ সদস্যরা ক্ষিপ্ত হয়ে পিকআপে থাকা ডিমের খাঁচি বাঁধার রশি ছুরি দিয়ে কেটে দেয়। এতে খাঁচিগুলো রাস্তায় পড়ে অধিকাংশই ডিম ভেঙে নষ্ট হয়ে যায়। বেলা ১১টার দিকে স্থানীয় মহিলারা রাস্তায় পড়ে থাকা ভাঙাচোরা ডিম কুড়িয়ে নিচ্ছেন।

আলিম হোসেন শিকদার দাবি করেন, পিকআপটি কাত হয়ে ডিম পড়ে গেছে। এ সময় রশিগুলোর কাটা টুকরো রাস্তায় পড়ে থাকার বিষয়ে জানতে চাইলে ওসি বলেন, ‘তাহলে সেগুলো রেকারের লোকেরা কাটতে পারে।’

প্রিয় সংবাদ/রিমন