অভিনয়শিল্পীসহ ছবিটির কলাকুশলীরা। ছবি: সংগৃহীত

মিশন এক্সট্রিম: দুবাই মিশন সম্পন্ন

দুবাইয়ের বিভিন্ন মনোরম লোকেশনে ১৪-১৮ মে ছবিটির শুটিং কার্যক্রম চলে।

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিয়.কম
প্রকাশিত: ২২ মে ২০১৯, ১৫:৫৩ আপডেট: ২২ মে ২০১৯, ১৫:৫৩
প্রকাশিত: ২২ মে ২০১৯, ১৫:৫৩ আপডেট: ২২ মে ২০১৯, ১৫:৫৩


অভিনয়শিল্পীসহ ছবিটির কলাকুশলীরা। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) মধ্যপ্রাচ্যের আকর্ষণীয় শহর দুবাইয়ে ‘মিশন এক্সট্রিম’ সিনেমার বেশ কিছু দৃশ্যের শুটিং সম্পন্ন করে দেশে ফিরেছে পুরো ইউনিট। দুবাইয়ের বিভিন্ন মনোরম লোকেশনে ১৪ থেকে ১৮ মে পর্যন্ত এই শুটিং কার্যক্রম চলে। সেখানে একটি গান এবং বেশ কিছু অ্যাকশন দৃশ্য শুটিং করা হয়।

আরিফিন শুভ, সাদিয়া নাবিলা, ফজলুর রহমান বাবুসহ আরও দু’জন জনপ্রিয় অভিনেতা শুটিং-এ অংশগ্রহণ করেন। এ ছাড়াও কয়েকজন প্রবাসী বাংলাদেশি এবং আরবীয় অভিনেতাকে দেখা যাবে এই সিমেনায়।

দুবাইয়ের প্রচণ্ড দাবদাহে মধ্যে দু’দিনব্যাপী চলে একাধিক অ্যাকশন দৃশ্যের শুটিং। মরুভূমির প্রতিকূল আবহাওয়ার মধ্যে পুরো শুটিং প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে বেশ বেগ পেতে হয়েছে ইউনিটকে।

যদিও আরিফিন শুভসহ কয়েকজন অভিনেতাকে আবহাওয়ার সাথে খাপ খাওয়াতে শুটিং শুরুর বেশ কিছুদিন আগেই দুবাই পাঠানো হয়।
শুটিং প্রক্রিয়াটি যথাযথভাবে সম্পন্ন করতে দুবাইয়ের বেশ কয়েকজন স্ট্যান্টম্যান এবং অভিনেতাকে অ্যাকশন দৃশ্যে ব্যবহার করা হয়।

সানী সানোয়ার (কাহিনী, চিত্রনাট্য, সংলাপ এবং পরিচালনা) এবং ফয়সাল আহমেদ (পরিচালক) ছাড়াও দেশি-বিদেশি বেশ কয়েকজনের একটি টেকনিক্যাল টিম এই শুটিং প্রক্রিয়ায় অংশগ্রহণ করে।

দুবাইয়ের কাজ শেষ হওয়ার মাধ্যমে সিনেমাটির প্রায় ৯০ শতাংশ শুটিং সম্পন্ন হয়েছে। অচিরেই বাকি শুটিংও সম্পন্ন হবে। 

২২ মে থেকে শুরু হয়েছে সিনেমাটির পোস্ট প্রোডাকশনের কাজ। সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে এ বছরের শেষের দিকে ছবিটি মুক্তি দেওয়া হবে।

আরিফিন শুভ বলেন, ‘মরুভূমিতে এতটা প্রতিকূলতা উপেক্ষা করে শুটিং করার সময় শুধু একটি কথাই মনে হয়েছে যে, দর্শকরা এই দৃশ্যগুলো উপভোগ করবেন। আমি নিজেও আমাদের দেশীয় সিনেমায় এরকম কিছু মুহূর্ত বিনির্মাণে আত্মনিয়োগ করতে পেরে আনন্দিত।’

পরিচালক সানী সানোয়ার বলেন, ‘দেশীয় সিনেমার এই ছোট বাজারের জন্য অত্যন্ত সীমিত বাজেটে সিনেমা নির্মাণ করা খুব দুরহ। কেননা, স্বল্প বাজেটে সিনেমায় মজা খুব কম থাকে। তবুও আমরা সিনেমাটির দুবাইয়ের শুটিং পর্বে একটি বড় অংকের বাজেট খরচ করেছি। এটি অবশ্যই আমাদের একটি উচ্চাবিলাসী উদ্যোগ। তবে, আমাদের টার্গেট দর্শকদের মন জয় করে এই খরচ উঠিয়ে নিয়ে আসা।’

জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী বলেন, ‘আমার বিশ্বাস দুবাইয়ের শুটিং আমাদের সিনেমার একটি অন্যতম বড় সৌন্দর্য্য বয়ে আনবে। ’

বাংলাদেশের প্রথম পুলিশ অ্যাকশন থ্রিলার সিনেমা ‘ঢাকা অ্যাটাক’-এর পর ‘মিশন এক্সট্রিম’ একই টিমের দ্বিতীয় সিনেমা। ঢাকা ও ঢাকার পার্শ্ববর্তী এলাকার বেশ কিছু লোকেশনে ২০ মার্চ ‘মিশন এক্সট্রিম’ সিনেমার শুটিং শুরু হয়ে ২৪ এপ্রিল পর্যন্ত চলে।

এই শুটিং কার্যক্রমে উল্লিখিত কলাকুশলী ছাড়াও তাসকিন আহমেদ, শতাব্দী ওয়াদুদ, হাসান ইমাম, সুমিত সেন গুপ্ত, মাজনুন মিজান, মনোজ প্রামাণিক, সৈয়দ আরেফ, হায়দার আলী, সুদীপ, ইমরান সওদাগর, দীপু ইমাম প্রমুখও বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করেছেন।

প্রিয় বিনোদন/আশরাফ

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন

ছাড়পত্র পেল ‘মায়াবতী’

প্রিয় ৪ ঘণ্টা, ৫১ মিনিট আগে

ছাড়পত্র পেল ‘আব্বাস’

প্রিয় ২১ ঘণ্টা, ৩ মিনিট আগে

loading ...