সাতদিনের মাথায় আবারও থানায় উপস্থিত হলেন নেইমার। ছবি: সংগৃহীত

খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে থানায় নেইমার, পাঁচ ঘণ্টা ধরে জিজ্ঞাসাবাদ

বিতর্ক যেন কোনোভাবেই পিছু ছাড়ছে না নেইমারের।

মুশাহিদ
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ১৪ জুন ২০১৯, ১৮:২৪ আপডেট: ১৪ জুন ২০১৯, ১৮:২৭
প্রকাশিত: ১৪ জুন ২০১৯, ১৮:২৪ আপডেট: ১৪ জুন ২০১৯, ১৮:২৭


সাতদিনের মাথায় আবারও থানায় উপস্থিত হলেন নেইমার। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) বিতর্ক যেন কোনোভাবেই পিছু ছাড়ছে না নেইমারের। বেশ কিছুদিন আগেই তার নামের পাশে যোগ হয় ধর্ষণের অভিযোগ। ধর্ষণের অভিযোগে গেল সপ্তাহে থানায় হাজিরা দেন ব্রাজিলের এই তারকা ফুটবলার। এবার সেই মামলায় তাকে টানা ৫ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেছে ব্রাজিলের পুলিশ।

১৩ জুন, বৃহস্পতিবার ব্রাজিলের স্থানীয় সময় বিকেল ৪টায় খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে থানায় প্রবেশ করেন নেইমার। জিজ্ঞাসাবাদ শেষ হলে রাত ৯টার পর থানা থেকে বের হন প্যারিস সেইন্ট জার্মেইর (পিএসজি) এই ব্রাজিলিয়ান তারকা।

থানা থেকে বেরিয়ে অবশ্য তার বিরুদ্ধে আনা ধর্ষণের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন নেইমার। থানা গেটের সামনে উপস্থিত সাংবাদিকদের তিনি বলেন, ‘আজ নয়তো কাল, সত্য একদিন বের হবেই!’

গেল ১ জুন নেইমারের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ আনেন এক তরুণী। তার ভাষ্যমতে, সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে খুদে বার্তা আদান-প্রদানের পর ফ্রান্সে নেইমারের সঙ্গে সাক্ষাৎ হয়। গাল্লো নামে পিএসজি তারকার এক প্রতিনিধি তাকে প্যারিসে আসার টিকিট কিনে দেন এবং হোটেলে থাকার ব্যবস্থাও করেন।

থানা থেকে বেরিয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন নেইমার। ছবি: সংগৃহীত

নাজিলা ত্রিনদাদে নামের অভিযোগকারী ওই তরুণীর ভাষ্য, নেইমার মাতাল হয়ে হোটেলে আসেন এবং তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে যৌন সম্পর্ক স্থাপন করেন। এর প্রমাণ হিসেবে একটি ভিডিও পর্যন্ত প্রকাশ্য করেন ব্রাজিলের ওই তরুণী। এর জবাবে পাল্টা ভিডিও বানিয়ে পোস্ট করেন নেইমার। এটি দেখে তার বিরুদ্ধে মামলা ঠুকে দেয় ব্রাজিলিয়ান পুলিশ। তাদের অভিযোগ, এই ভিডিও বানিয়ে বাদীর গোপনীয়তা লঙ্ঘন করেছেন নেইমার।

এর আগে সাও পাওলোতে নেইমারের বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা দায়ের করেন নাজিলা ত্রিনদাদে। এর কিছুদিন পর অনুশীলন মাঠে এসে নেইমারের হাতে আদালতের সমন ধরিয়ে দেয় পুলিশ। গেল ৭ মে ছিল নেইমারের হাজিরার দিন। ইনজুরি থাকা সত্ত্বেও এদিন হুইল চেয়ারে চেপে থানায় উপস্থিত হন ব্রাজিলিয়ান তারকা। এর সাতদিনের মাথায় আবারও থানায় উপস্থিত হতে হয় তাকে।

প্রিয় খেলা/কামরুল