সুপার শপ স্বপ্নের একটি আউটলেট। ফাইল ছবি

জরিমানার পর স্বপ্নের ব্যবসা বন্ধের হুমকি

বারবার এ ধরনের অভিযান চালিয়ে স্বপ্নকে হয়রানি করা হয়েছে। এটি কোনো একটি চক্রের কাজ।

ফারজানা মাহাবুবা
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ২২ মে ২০১৮, ০৯:৫৫ আপডেট: ১৯ আগস্ট ২০১৮, ১৫:১৬


সুপার শপ স্বপ্নের একটি আউটলেট। ফাইল ছবি

(প্রিয়.কম) ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযানের সময় আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেয় না অভিযোগ এনে হয়রানি বন্ধ না হলে ব্যবসা গুটিয়ে নেওয়ার হুমকি দিয়েছে সুপার শপ স্বপ্ন

২০ মে, রবিবার নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে বেশি দামে বিক্রি ও মেয়াদোত্তীর্ণ পণ্য মজুদ রাখার অভিযোগে সুপার শপ স্বপ্নের বনানী শাখাকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে এক সংবাদ সম্মেলনে ব্যবসা বন্ধের এ হুমকি দেয় স্বপ্ন কর্তৃপক্ষ। প্রতিষ্ঠানটির নির্বাহী পরিচালক সাব্বির হাসান নাসির সংবাদ সম্মেলনে স্বপ্নের পক্ষে বক্তব্য তুলে ধরেন। 

সাব্বির হাসান নাসির বলেন, ‘বনানী ১১ নম্বর আউটলেটে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও একজন ম্যাজিস্ট্রেট আসছেন। তারা বেশকিছু অভিযোগ করেছেন। আমাদের কাছে তাদের অভিযোগগুলো অযৌক্তিক মনে হয়েছে।’

এ সময় নাসির দাবি করেন, বারবার এ ধরনের অভিযান চালিয়ে স্বপ্নকে হয়রানি করা হয়েছে। এটি কোনো একটি চক্রের কাজ।

সাব্বির বলেন, ‘বর্তমানে বাংলাদেশের চেইন শপে মার্কেট লিডার আমরা। বাজারে ২৫ শতাংশ শেয়ার রয়েছে স্বপ্নের। আমাদের ক্রেতা দিন দিন বাড়ছে। এসব অভিযান চালিয়ে আমাদের সুনাম নষ্ট করা হচ্ছে। এভাবে চলতে থাকলে আমরা আমাদের কার্যক্রম পরিচালনা বন্ধ করতে বাধ্য হব।’

ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযোগগুলোর ব্যাখ্যা করে প্রতিষ্ঠানটির নির্বাহী পরিচালক বলেন, ‘তারা (ভ্রাম্যমাণ আদালত) কোকের এক্সপায়ারড ডেট ফেইক বলছে। এখানে কোকের প্রতিনিধিরা আছেন। তারা বলেছে, এগুলো স্ট্যাম্পিং করে বসানো হয়নি।

এখন একজন মানুষের মনে হলো যে এখানে ফেইক ডেট বসানো হয়েছে। তার ভিত্তিতে জরিমানা করা হয়েছে। এটা কোনোভাবেই যৌক্তিক নয়।’ 

প্রিয় সংবাদ/রুহুল

 

 

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


আরো পড়ুন
২০ বছরে ঋণখেলাপি বেড়েছে শত ভাগেরও বেশি
প্রিয় ডেস্ক ১৯ অক্টোবর ২০১৮
ঢাকা ও রিয়াদের মধ্যে ৫টি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর
আয়েশা সিদ্দিকা শিরিন ১৮ অক্টোবর ২০১৮
স্পন্সরড কনটেন্ট