যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম মুসলিম মেয়র পদপ্রার্থীর প্রাণনাশের হুমকি

রচেস্টার শহরের মেয়র নির্বাচনের জন্য দাঁড়িয়েছেন রেজিনা। তিনি জানান, চলতি সপ্তাহে ‘মিলিশিয়া মুভমেন্ট’ থেকে অনলাইনে তাকে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়।

ফাওজিয়া ফারহাত অনীকা
সহ-সম্পাদক
১৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, সময় - ১৬:৩৭

জীবননাশের হুমকি দমাতে পারবে না বলে জানান রেজিনা। ছবি: আলজাজিরা

(প্রিয়.কম) যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম মুসলিম মেয়র পদপ্রার্থী মিনেসোটা অঙ্গরাজ্যের রোচেস্টারের রেজিনা মুস্তাফাকে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হয়েছে।

চলতি সপ্তাহের শুরুতে রেজিনাকে ‘শেষ করে দেওয়া’র এই হুমকি দেয় ‘মিলিশিয়া মুভমেন্ট’ নামের একটি সংগঠন। 

আলজাজিরার খবরে জানানো হয়, মিনেসোটার বৃহত্তম শহর মিনেপোলিস থেকে ১১৬ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত রোচেস্টারের মেয়র হওয়ার দৌঁড়ে আছেন রেজিনা। গত সপ্তাহে অনলাইনে মৃত্যুর হুমকি দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।

আমার জানার কোনো উপায় নেই যে সেই ব্যক্তিটি আমার কাছে আছে নাকি অন্য কোন দেশে’, বলেন রেজিনা।

টুইটারে এক পোস্টে রেজিনা বলেন, 'এই ব্যাপারটি আমাকে পিছু হটাতে পারবে না। কিন্তু যেকোনো হুমকিকে গুরুত্ব দিয়ে দেখা উচিত। নির্বাচিত হয়ে কমিউনিটিকে সেবার লক্ষ্য নিয়ে মাঠে নামা কারোরই হুমকিতে সন্ত্রস্ত হওয়া উচিত নয়।’

এদিকে হুমকির ঘটনায় আমেরিকান-ইসলামিক রিলেশনস কাউন্সিল (সিএআইআর) বিষয়টি তদন্ত করার জন্য পুলিশকে অনুরোধ করেছে।

সিএআইআর মিনেসোটা চ্যাপ্টারের নির্বাহী পরিচালক জেলানি হুসেন বলেন, 'হুমকি তদন্তের জন্য আমরা রাষ্ট্র ও কেন্দ্রীয় আইন প্রয়োগকারী সংস্থাকে জানিয়েছি। আমরা সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের সদস্য। রাজনৈতিক কর্মকাণ্ডে অংশ নিচ্ছে বলে এই হুমকি দেওয়া হয়েছে।' 

স্টার ট্রিবিউনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, চলন্ত গাড়ি থেকে রেজিনার বিষয়ে উচ্চবাচ্য করা হয়েছে। এর আগে গত বছর কফি শপে একজন তার কাছে গিয়ে বলেন, ‘বাড়ি চলে যাও’।

রচেস্টার পুলিশ বিভাগ দ্য ইন্ডিপেন্ডেন্টকে জানিয়েছে, ঘটনার তদন্ত করা হচ্ছে। কিন্তু এই হুমকি সরাসরি রেজিনাকে উদ্দেশ্য করে দেওয়া নয় বলে কেনো ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলা করা কঠিন হয়ে যাবে।

এমন বাস্তবতায় রেজিনা বলেন, ‘আমার ধারণা যে তারা এই হুমকিকে হয়রানি হিসেবে বিবেচনা করছে। আমি বহু হয়রানি সহ্য করেছি। আমি জানি কোনটি হয়রানি। তাই বলতে পারি এটা একটি হুমকি।'

প্রিয় সংবাদ/আজহার

 

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


স্পন্সরড কনটেন্ট
জনপ্রিয়
আরো পড়ুন