প্রিয়.কম

মুক্তিপিনে কিভাবে পিন করবেন?

কিভাবে মুক্তিপিনে পিন করবেন? কয়েকটি সহজ ধাপে আপনি মুক্তিপিনে পিন করতে পারবেন। মুক্তিপিন এর মাধ্যমে আপনি বাংলাদেশের ম্যাপে মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজরিত স্থানসমূহ পিন করতে পারবেন।

প্রিয় ডেস্ক
ডেস্ক রিপোর্ট
প্রকাশিত: ২৫ নভেম্বর ২০১৭, ১৬:০৩ আপডেট: ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৩:১০
প্রকাশিত: ২৫ নভেম্বর ২০১৭, ১৬:০৩ আপডেট: ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৩:১০


প্রিয়.কম

কিভাবে পিন করবেন?

১. আপনার স্মার্টফোনটিতে প্রিয় অ্যাপটি ডাউনলোড করুন অথবা ব্রাউজার থেকে Priyo.com/muktipin ওয়েবপেইজটি ভিজিট করুন।

২. ওয়েবপেইজ বা অ্যাপটি লোড হওয়ার পর আপনার সামনে উন্মুক্ত হওয়া স্ক্রীনটিতে "পিন করুন" নামক বাটনটি ক্লিক করুন

৩. একটি উইন্ডো প্রদর্শিত হবে, সেখানে আপনার প্রাথমিক সমস্ত তথ্য(নাম, ফোন নাম্বার এবং ইমেইল) দেয়ার পর, তথ্যসূত্রসহ আপনার পিন সম্পর্কিত বিস্তারিত তথ্য দিন।

৪. মুক্তিপিনের টাইটেল, ওই ঘটনার সাথে সংশ্লিষ্ট ছবি(এক বা একাধিক ছবি ব্যবহার করা যাবে), ঘটনার বিবরণ, সময়কাল (বাধ্যতামূলক নয়) লিখে সঠিক স্থানটি ম্যাপে সংযুক্ত করে পোষ্ট বাটনে ক্লিক করুন।

৫. ঘটনা সংশ্লিষ্ট সঠিক জায়গাটি ম্যাপে পিন করার সুবিধার্থে ম্যাপের সাথে সংযুক্ত সার্চ অপশনে জায়গাটির নাম লিখে "এন্টার" ক্লিক করুন। এরপর সঠিক জায়গাটি ম্যাপের মধ্য থেকে খুজে বের করে পিন করুন।

৬. পোষ্ট করার পর আপনার পিনটি প্রাথমিক ভাবে ম্যাপে সংরক্ষিত হবে।কিছু সময় পর যাচাই- বাছাই (ভেরিফিকেশন) প্রক্রিয়া শেষে আপনার পিনটি আমাদের মুক্তি পিন ম্যাপে স্থায়ীভাবে প্রকাশ করা হবে।

সতর্কতাঃ

১. মুক্তিপিন প্রদানের জন্য আপনার দেয়া তথ্যগুলো অবশ্যই বাংলায় হতে হবে। এক্ষেত্রে ইউনিকোড কিংবা অভ্র, অংকুর ইত্যাদি ফন্ট ব্যবহার করা যাবে।

২. আপনি যেখান থেকে তথ্যগুলো নিয়েছেন সেটির যথাযথ সোর্স অবশ্যই উল্লেখ করতে হবে। একাধিক সোর্স থেকে নেয়া হলে একাধিক সোর্সের নাম উল্লেখ করতে হবে।

৩. কোন লেখকের বই থেকে তথ্য নিয়ে পিন করলে, অবশ্যই সেই বই এর নাম, লেখকের নামসহ উল্লেখ করতে হবে।  সংবাদপত্র কিংবা কোন অনলাইন জার্নাল, কিংবা ব্লগ থেকে তথ্য নিলে সেটার সঠিক লিংক সূত্রে উল্লেখ করতে হবে।

৪. উইকিপিডিয়া থেকে তথ্য নিয়ে পিন করা যাবে। কিন্তু সেক্ষেত্রে উইকিপিডিয়ার যথাযথ লিংক সূত্রে উল্লেখ করতে হবে।

৫. এমন অনেক ইতিহাস আছে যেটি সয়ং মুক্তিযোদ্ধা, তাদের সন্তান কিংবা আত্মীয়স্বজনদের মুখ থেকে শোনা। তেমন কোন তথ্য দিয়ে পিন করলে সংশ্লিষ্ট মুক্তিযোদ্ধার নাম, ঠিকানা আর কোন সেক্টরে যুদ্ধ করেছেন, তার ডিটেইলস দিতে হবে তথ্যসূত্রের মাঝে।

৬. ঐতিহাসিক জায়গাটির যুদ্ধের সময়কার তৎকালীন ছবি দেয়া বাধ্যতামূলক নয়। বর্তমানে ওই স্থানটি যেমন অবস্থায় আছে সেই ছবিটিও প্রদান করা যাবে।

৭. মুক্তিযুদ্ধের সাথে সংশ্লিষ্ট নয় এমন কোন অবান্তর ঘটনা পিন করা হলে কিংবা পিনকৃত ঘটনাটির সত্যতা না পাওয়া গেলে সেটি তাৎক্ষনিকভাবে ম্যাপ থেকে মুছে ফেলা হবে।

৮. ইচ্ছাকৃতভাবে ভুল/মিথ্যে তথ্য প্রদান করে পিন করলে, কিংবা অযাচিত ছবি দিয়ে পিন করলে আইডি ডিজাবল হয়ে যাবে এবং এই আইডি দিয়ে ভবিষ্যতে আর কোন পিন করা যাবে না।