‘খালেদা জিয়া প্রথম শ্রেণির রাজবন্দীর চেয়েও বেশি সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছেন’

‘খালেদা জিয়া কারাগারে প্রথম শ্রেণির রাজবন্দীর চেয়েও বেশি সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছেন’ বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

শেখ নোমান
সহ-সম্পাদক
২৪ মে ২০১৮, সময় - ২১:৩৬

রাজধানীর ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দিচ্ছেন ড. হাছান মাহমুদ। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) ‘খালেদা জিয়া কারাগারে প্রথম শ্রেণির রাজবন্দীর চেয়েও বেশি সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছেন’ বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ

২৪ মে, বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজধানীর ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে কারাগারে খালেদা জিয়ার সুযোগ-সুবিধা নিয়ে বিএনপির অভিযোগের জবাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে হাছান মাহমুদ এ কথা বলেন।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, ‘বিএনপি নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া একজন প্রথম শ্রেণির রাজবন্দীর চেয়েও অনেক বেশি সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছেন। খালেদা জিয়া রাজবন্দী নন, তিনি দুর্নীতি মামলায় সাজাপ্রাপ্ত একজন কয়েদি। কারাবিধি অনুযায়ী, প্রথম শ্রেণির একজন কয়েদি যে সুযোগ-সুবিধা পান, তার চেয়ে বেশি এমনকি একজন রাজবন্দীর চেয়েও তিনি অনেক বেশি সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছেন।’

কারাগারে পাওয়া বিভিন্ন সুযোগ-সুুবিধার কথা উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক বলেন, ‘বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া অত্যন্ত পরিপাটি একটি কক্ষে থাকেন। সে কক্ষে নিয়মিত সংবাদপত্র দেওয়া হয়, টেলিভিশন ও ফ্রিজ রয়েছে এবং তার রান্নার কাজের জন্য একটি টিম রয়েছে।

তার স্বাস্থ্য পরিচর্যার জন্য সার্বক্ষণিক এক নারী নার্স থাকেন ও তার ব্যক্তিগত পরিচারিকা ফাতেমা তো রয়েছেনই। প্রতিদিন সকাল-বিকাল একজন চিকিৎসক তার স্বাস্থ্যের দেখভাল করেন। খালেদা জিয়া তার ব্যক্তিগত চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করেন। আর তার ব্যক্তিগত চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ীই তিনি ঔষধ গ্রহণ করছেন।’

‘বিএনপি নেতা রিজভী আহমেদ কারাগারে খালেদা জিয়ার সুযোগ-সুবিধা নিয়ে যে অভিযোগ করেছেন তার (খালেদা) চিকিৎসকেরাও এ ধরনের কোনো অভিযোগ তুলেননি। সুস্থ বেগম জিয়াকে অসুস্থ বানিয়ে দেশের মানুষকে বিভ্রান্ত করাই হলো বিএনপির বর্তমান রাজনীতি’, যোগ করেন হাছান মাহমুদ।

ওই সময় আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আমিনুল ইসলাম, উপ-দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া ও কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য মারুফা আক্তার পপিসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রিয় সংবাদ/আজাদ চৌধুরী

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


স্পন্সরড কনটেন্ট
জনপ্রিয়
আরো পড়ুন