খালেদা জিয়াকে জেলেই থাকতে হবে: রাষ্ট্রপক্ষ

খালেদা জিয়াকে হাইকোর্ট যে জামিন দিয়েছিল তা বহাল থাকবে।

আমিনুল ইসলাম মল্লিক
নিজস্ব প্রতিবেদক
১৬ মে ২০১৮, সময় - ১৫:২১

রাষ্ট্রের প্রধান কর্মকর্তা (অ্যাটর্নি জেনারেল) মাহবুবে আলম। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় রায় ঘোষণার পর রাষ্ট্রের প্রধান কর্মকর্তা (অ্যাটর্নি জেনারেল) মাহবুবে আলম জানিয়েছেন, খালেদা জিয়াকে হাইকোর্ট যে জামিন দিয়েছিল তা বহাল থাকবে।

১৬ মে, বুধবার সকালে রায় ঘোষণার পর অ্যাটর্নি জেনারেল তার নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এ কথা জানান।

মাহবুবে আলম বলেন, ‘৩১ জুলাইয়ের মধ্যে খালেদা জিয়ার আপিলটি নিষ্পত্তি করার জন্য আপিল বিভাগ নির্দেশ দিয়েছেন। আপিল বিভাগের এ আদেশের ফলে তিনি (খালেদা জিয়া) যে নিম্ন আদালতে এই মামলাটি ৯ বছর ঝুলিয়ে রেখেছিলেন, এখানে তিনি বিচারকাজ বিলম্বিত করতে পারবেন না।’

অ্যাটর্নি জেনারেল বলেন, ‘যেহেতু আপিল বিভাগ ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে আপিল নিষ্পত্তির নির্দেশ দিয়েছেন, তাই এই আপিলটি শুনানির ব্যাপারে আমরা প্রস্তুতি নেব এবং সর্বাত্মকভাবে আমরা প্রস্তুত হব।’

মাহবুবে আলম আরও বলেন, ‘তার বিরুদ্ধে কি মামলা আছে, অন্য কোনো মামলায় ওয়ারেন্ট আছে কি না বা কোনো মামলা পেন্ডিং আছে কি না—সেটি তো আমি বলতে পারব না। এটি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং তার আইনজীবীরা বলতে পারবেন।’

খালেদা জিয়া কারামুক্তি পাবেন কি না—এমন প্রশ্নের জবাবে মাহবুবে আলম বলেছেন, ‘একজনের বিরুদ্ধে যদি পাঁচটি মামলা থাকে, সেখানে একটি মামলায় জামিন পেলে অন্যান্য মামলায় জামিন না পাওয়া পর্যন্ত তাকে জেলেই থাকতে হবে। তবে তার নামে কয়টি মামলা আছে, কোন কোন মামলা কী অবস্থায় আছে, সেটি তো আমি বলতে পারব না। সচরাচর যেটি হয়, যদি পাঁচটি মামলা থাকে তবে পাঁচটি মামলাতেই তাকে জামিন নিতে হবে।’

জামিনের মেয়াদ গণনা বিষয়ে তিনি বলেন, ‘যেদিন আপিল বিভাগ জামিন স্টে করেছিল, সে কয়টি দিন ধরা হবে। যেদিন হাইকোর্ট দিয়েছিল এবং আপিল বিভাগ যেদিন স্টে করেছিল, সেই কয়দিন ধরা হবে এবং আজকে থেকে ওই দিনগুলোসহ গণনা শুরু হবে।’

রাষ্ট্রপক্ষ সাজা বাড়ানোর আবেদন করবে কি না—এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমরা তো সাজা বাড়ানোর আবেদন করিনি। এটি করেছে দুদক।’

প্রিয় সংবাদ/দেয়া/আজাদ চৌধুরী

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


স্পন্সরড কনটেন্ট
জনপ্রিয়
আরো পড়ুন