‘বহু বছর ধরেই আমি নাটকের ব্যাপারে চুজি’

‘অনেক মাস পর আমি শুটিং করছি। ঈদের প্রেসার অনেক বেশি। অনেকগুলো ভালো ভালো কাজ করব।’

শিবলী আহমেদ
সহ-সম্পাদক
১৬ মে ২০১৮, সময় - ১৩:৪৪

অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা। ছবি: শামছুল হক রিপন/প্রিয়.কম

(প্রিয়.কম) দীর্ঘদিন পর টেলিফিল্মের ক্যামেরার সামনে এলেন অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা। ১৫ মে থেকে উত্তরার শুটিং বাড়ি ‘স্বপ্নিল ৪’-এ তপু খানের পরিচালনায় শুরু হয়েছে ‘নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি’ টেলিফিল্মের শুটিং। এ টেলিফিল্মে আনিসুর রহমান মিলনের বিপরীতে অভিনয় করছিলেন নুসরাত ইমরোজ তিশা। টেলিফিল্মে তিনি দীপা চরিত্রে অভিনয় করছেন।

শুটিংয়ের অবসরে প্রিয়.কমের সঙ্গে কিছুক্ষণ আড্ডা হয় অভিনেত্রী তিশার। আড্ডায় উঠে আসে তার বর্তমান ব্যস্ততাসহ ঈদের প্রস্তুতি।

প্রিয়.কম: ঈদে কোন কোন নাটকে অভিনয় করছেন?

তিশা: এ প্রশ্নের উত্তর আমার কাছে জানা নেই। অনেকগুলো নাটকে কাজ করছি, কেননা অনেক মাস পর আমি শুটিং করছি। গত ঈদের পর ভ্যালেন্টাইনের কাজ ছাড়া আমি কাজ করিনি। এটা একটা দীর্ঘ বিরতি। মাঝখানে ফিল্মে শুটিং করেছি। অনেক মাস পর আমি শুটিং করছি। ঈদের প্রেসার অনেক বেশি। অনেকগুলো ভালো ভালো কাজ করব। কিন্তু লিস্ট এখন জানাতে পারছি না। সেটা জানাতে পারব হয়তো ঈদের তিন-চার দিন আগে।

প্রিয়.কম: নাটকের গল্প সিলেকশনের ক্ষেত্রে আপনি কি চুজি? চুজি হলে, কোন ধরনের গল্পে কাজ করতে ভালো লাগে আপনার?

তিশা: অবশ্যই চুজি। বহু বহু বছর ধরেই আমি নাটকের ব্যাপারে চুজি। চুজি ইন অ্যা সেন্স, দ্যাটস নট লাইক যে আমি এই ধরনের গল্প ছাড়া করব না, এরকম কিছুই না। যে গল্প আমাকে টানবে, যে গল্প আমার ভালো লাগবে, আমার ভালো লাগবে মানে যে সবার ভালো লাগবে, তা নয়, কিন্তু যে গল্প আমাকে টানবে, আমার করার কিছু থাকবে, আমার ভালো লাগবে, সেই নাটকই আমি করি। সে ক্ষেত্রে বলব আমি চুজি। চেষ্টা করি ভালো কিছু কাজ উপহার দেওয়ার প্রতিবারই, যেহেতু কাজ অনেক কম করি। বাকিটা দর্শকদের ওপর ছেড়ে দিই আরকি। আমার দায়িত্ব আমি পালন করি, বাকিটা দর্শক যতটুকু দেবে।

অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা। ছবি: শামছুল হক রিপন/প্রিয়.কম

প্রিয়.কম: এবার ঈদ কীভাবে পালন করবেন? ব্যতিক্রমী কিছু থাকছে কী?

তিশা: আমি সঠিক জানি না, সেটা ঈদের দিন এলেই বুঝতে পারব। শুটিংয়ের প্রেসার এত বেশি থাকে যে ঈদের দিন এনার্জি থাকে না। ঈদের আগের দিন পর্যন্ত শুট করতে হয় আমাদের, শিডিউল দেওয়া থাকে। ট্রাই করি ঈদটা ফ্যামিলি মেম্বারসদের সঙ্গেই কাটানোর। এবারও আমি আসলে ফ্যামিলি মেম্বারসদের সঙ্গেই কাটাব ঈদ। কীভাবে কাটাব, সেটা এখনো পর্যন্ত শিওর না।

প্রিয়.কম: ঈদের কেনাকাটা কি শুরু করে দিয়েছেন?

তিশা: না না, কাজের প্রেসারে কিছুই করতে পারছি না। কাল থেকে রোজার কেনাকাটা শুরু হবে। ঈদের কেনাকাটা বলতে, আমি ফ্যামিলি মেম্বারসদের জন্য কিনি। আমার জন্য সরয়ার [মোস্তফা সরয়ার ফারুকী] কেনে। ১৫ রোজার আগে কেনাকাটা শুরু হবে না বেসিক্যালি। কারণ প্রোডাক্ট কালেকশনই তো শুরু হয় ১৫ রোজার পর।

প্রিয়.কম: আপনার পছন্দের ব্র্যান্ড?

তিশা: আমি দেশি মানুষ দেশি ব্র্যান্ডই ব্যবহার করি। দেশি জিনিসই ব্যবহার করার চেষ্টা করি। তার মানে এই নয় যে আমি বাইরে থেকে শপিং করি না। যখন যেখানে যাই, সেখানকার জিনিসও ব্যবহার করি, সেখানকার জিনিসও পরি, দেশের জিনিসও পরি। যেহেতু দেশে অধিকাংশ সময় থাকা হয়, অবশ্যই দেশি জিনিস পরা হয়।

প্রিয়.কম: এ টেলিফিল্মে আপনি দীপা চরিত্রে অভিনয় করছেন…

তিশা: আসলে ক্যারেক্টার নিয়ে বলতে গেলে বলব যে একটা কর্পোরেট অফিসে জব করে একটি মেয়ে। যে খুব শান্ত, ধৈর্যশীল একজন নারী। তার খুব পরিমিত বোধ। যে কোনো জিনিসের সঙ্গে সহজে অ্যাডজাস্ট করে নেওয়ার ক্ষমতা তার আছে। আপাতত এ পর্যন্তই বলতে পারব। বাকিটা স্ক্রিনে দেখুন।

প্রিয় বিনোদন/গোরা 

পাঠকের মন্তব্য(০)

মন্তব্য করতে করুন


স্পন্সরড কনটেন্ট
জনপ্রিয়
আরো পড়ুন