(প্রিয়.কম) ‘সং‌বিধান অনুযায়ী আগামী নির্বাচন অনু‌ষ্ঠিত হ‌বে ব‌লে প্রধানমন্ত্রী আবারও জা‌তি‌কে সংক‌টের দি‌কে ঠে‌লে দি‌লেন’ ব‌লে মন্তব্য ক‌রে‌ছেন বিএন‌পির মহাস‌চিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর

তি‌নি ব‌লেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর বক্ত‌ব্যে জা‌তি হতাশ হ‌য়েছে। বরং জনগণ ভাব‌ছিল দেশে যে এক‌টি রাজ‌নৈ‌তিক সংকট সৃ‌ষ্টি হ‌য়ে‌ছে, দে‌শের মানুষ যে এক‌টি অ‌স্থি‌তিশীল অবস্থার ম‌ধ্যে প‌ড়ে‌ছে, এমন সম‌য়ে প্রধানমন্ত্রী তার ভাষ‌ণে এক‌টি সুন্দর সমাপ‌নী বক্ত‌ব্যে দি‌তে পার‌তেন। কীভা‌বে সাম‌নে নির্বাচন হ‌বে এবং এই বিরাজমান সংকট থে‌কে উ‌ত্তোর‌ণ ঘটা‌নো যায়, তার ব্যবস্থা তি‌নি কর‌বেন। কিন্তু দুঃখজনকভা‌বে আমরা প্রধানমন্ত্রীর ভাষ‌ণে সেই সংকট নিরস‌নের লক্ষণ খুঁজে পাই না। একই স‌ঙ্গে তি‌নি যে বক্ত‌ব্য দি‌য়ে‌ছেন এ‌তে প্রমাণ হয় গণতন্ত্র প্র‌তিষ্ঠায় তারা আন্ত‌রিক নয়।’

জা‌তির উ‌দ্দে‌শে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া ভাষ‌ণের পর তাৎক্ষ‌ণিক প্র‌তিক্রিয়ায় ১২ জানুয়ারি, শুক্রবার রা‌তে দ‌লের চেয়ারপারসন খা‌লেদা জিয়া গুলশা‌নের রাজ‌নৈ‌তিক কার্যাল‌য়ের সাম‌নে তি‌নি এসব কথা ব‌লেন।

মির্জা ফখরুল ব‌লেন, ‘জনগণ অপেক্ষা কর‌ছে সকল দ‌লের অংশগ্রহ‌ণে এক‌টি নির্বাচন হ‌বে। কিন্তু সেই ব্যাপা‌রে প্রধানমন্ত্রী জনগণ‌কে আশাবাদী কর‌তে পা‌রেন‌নি, হতাশ ক‌রে‌ছেন। প্রধানমন্ত্রীর বক্ত‌ব্যে সম‌ঝোতার ইঙ্গিত আ‌সে‌নি, যে সংকট র‌য়ে‌ছে, তা র‌য়েই গেল। তার বক্ত‌ব্যে জনগ‌ণের কোনো আশার প্র‌তিফলন ঘ‌টে‌নি। ত‌বে আমরা বিশ্বাস ক‌রি, দে‌শের জনগণ এ অন্যায় মেনে নে‌বে না। কারণ দে‌শের মানুষ স‌ত্যিকার অ‌র্থে এক‌টি অর্থবহ নির্বাচন দে‌খ‌তে চায়।‘

প্রধানমন্ত্রীর বক্ত‌ব্য জা‌তি‌কে আ‌রেক দফা সংক‌টের দি‌কে নি‌য়ে যা‌চ্ছে বলেও মন্তব্য ক‌রেন বিএন‌পির মহাস‌চিব।

দশম সংসদ নির্বাচনের পর গঠিত আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন সরকারের চার বছর পূর্তিতে ১২ জানুয়ারি, শুক্রবার জাতির উদ্দেশে দেয়া প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ বাংলাদেশ টেলিভিশন ও বাংলাদেশ বেতারে সরাসরি সম্প্রচার করা হয়। সে ভাষণে তিনি ২০১৩ সালের মতোই নির্বাচনের আগে মন্ত্রিসভা পুনর্গঠনের মাধ্যমে একটি ‘নির্বাচনকালীন সরকার গঠন করা হবে বলে জানান। তার সেই ভাষণের পর উপরোক্ত প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ৫ জানুয়ারি নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন না হওয়ায় ওই নির্বাচনে অংশ নেয়নি বিএনপি। তাদের ভোট বর্জন ও প্রতিহতের হুমকিতে আন্দোলনের মধ্যেই ১২ জানুয়ারি নতুন সরকার গঠন করেন শেখ হাসিনা।

প্রিয় সংবাদ/হিরা/আজাদ চৌধুরী