(প্রিয়.কম) রিয়াল মাদ্রিদে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর সঙ্গে দারুণ উপভোগ্য সময় পার করেছেন হোসে মরিনহো। স্পেশাল ওয়ান সেই সময়টা ফিরিয়ে আনতে চেয়েছিলেন ওল্ড ট্র্যাফোর্ডেও! বাতাসে ভেসে বেড়ানো সিআর সেভেনের সাবেক ক্লাবে ফিরে যাওয়ার গুঞ্জনটাও ছিল বেশ জুড়ালো।

কিন্তু শেষ পর্যন্ত রিয়াল মাদ্রিদের পর্তুগিজ সুপারস্টার রোনালদোর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যাওয়ার সম্ভাবনা উড়িয়ে দিয়েছেন দলটির অভিজ্ঞ কোচ মরিনহো। এ বিষয়ে তিনি সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, ‘আমি আমার ক্লাবের সময় এমন কারো জন্য নষ্ট করতে চাই না যাকে আনা মিশন ইমপসিবলের মতো ব্যাপার।’

তাতেই ব্যাপারটা খুব সুস্পষ্ট। গত মাসেই বিভিন্ন প্রতিবেদনে উঠে আসা খবরের ভিত্তিতে জানা যায়, কর সংক্রান্ত ঝামেলার কারণে স্পেনের রিয়াল মাদ্রিদ ছেড়ে ম্যানচেস্টারে যোগ দিতে পারেন রোনালদো। ২০০৯ সালে এই দল থেকে যে রিয়ালে পাড়ি দেন পর্তুগিজ সুপারস্টার!

রোনালদোর ব্যাপারে মরিনহো এসময় আরও বলেন, ‘রোনালদো তার ক্লাবের জন্য গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়। সে এমন একজন খেলোয়াড় যার বড় অর্থনৈতিক শক্তি আছে। আমাদের এমন কোনও সামর্থ্য নেই, যাতে ভাবতে পারি সে আমাদের এখানে আসবে।’

এদিকে আগামী ৮ আগস্ট মেসিডোনিয়ার স্কোপজের দ্বিতীয় ফিলিপ ন্যাশনাল অ্যারেনায় মুখোমুখি হতে যাচ্ছেন গুরু-শিষ্য। ‍উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্সলিগ জয়ী রিয়াল মাদ্রিদ ও ইউরোপা লিগের চ্যাম্পিয়ন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড লড়াই করবে উয়েফা সুপার কাপে। সেখানেই মুখোমুখি হতে যাচ্ছেন মরিনহো-রোনালদো।

গত মৌসুমে সেভিয়াকে হারিয়ে সুপার কাপ জয়ের স্বাদ পায় জিনেদিন জিদানের দল। তাদের সামনে এবার চার বছরের মধ্যেই তিনবার শিরোপা জয়ের হাতছানি। অন্যদিকে ১৯৯১ সালের পর প্রথমবার উয়েফা সুপার কাপ জয়ের লক্ষ্য নিয়ে মাঠে নামবে মরিনহোর শিষ্যরা।

সূত্র: বিবিসি

প্রিয় স্পোর্টস/কামরুল