(প্রিয়.কম) ‘পানামা পেপারসের’ পর বারমুডায় অবস্থিত অ্যাপলবাই নামের এক আইনি সহযোগী সংগঠনের ফাঁস হওয়া গোপন নথি ‘প্যারাডাইস পেপারসে’ বাংলাদেশিদের নাম এসেছে।

১৭ নভেম্বর শুক্রবার নতুন করে প্রায় ২৫ হাজার নথি প্রকাশ করা হয়েছে। এতে বাংলাদেশের বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তির নাম জানা গেছে। 

প্যারাডাইস পেপারসে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও এফবিসিসিআই’র সাবেক সভাপতি আব্দুল আউয়াল মিন্টুসহ তার পরিবারের সদস্যদের নাম রয়েছে।

তালিকায় মিন্টুর পরিবারের সদস্যদের মধ্যে তার স্ত্রী নাসরিন ফাতিমা আউয়াল, তিন ছেলে তাবিথ আউয়াল, তাফসির আউয়াল ও তাজওয়ার মোহাম্মদ আউয়ালের নাম রয়েছে। মিন্টু মাল্টিমোড গ্রুপের চেয়ারম্যান, তার স্ত্রী এই প্রতিষ্ঠানের ভাইস চেয়ারপারসন আর তাদের তিন ছেলে এই গ্রুপের পরিচালক।

তালিকায় আরও রয়েছেন, ফরিদা মুঘল, শহীদ উল্লাহ, গ্লোবেলেক এশিয়া লিমিটেড ও গ্লোবেলেক এশিয়া হোল্ডিংস লিমিটেডের চৌধুরী ফয়সাল ও ড্রাগন ক্যাপিটেল ক্লিন ডেভেলপমেন্ট ইনভেস্টমেন্টস লিমিটেডের সামির আহমেদের নাম।

প্রতিষ্ঠানের তালিকায় রয়েছে, ইউনোকল বাংলাদেশ এক্সপ্লোরেশন লিমিটেড, ইউনোকল বাংলাদেশ ব্লক সেভেন লিমিটেড, ইউনোকল বাংলাদেশ ব্লক ফাইভ লিমিটেড, ইউনোকল বাংলাদেশ ব্লক টেন লিমিটেড, ইউনোকল বাংলাদেশ ব্লকস থার্টিন অ্যান্ড ফোর্টিন লিমিটেড, ইউনোকল বাংলাদেশ ব্লক টুয়েলভ লিমিটেড, বার্লিংটন রিসোর্সেস বাংলাদেশ লিমিটেড, ফ্রন্টিয়ার বাংলাদেশ-বারমুডা লিমিটেড, টেরা বাংলাদেশ ফান্ড লিমিটেড, আনিসুর রহমান অ্যান্ড কোং ও ব্রামার অ্যান্ড পার্টনার্স অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট (বাংলাদেশ) লিমিটেড।

এক বছর আগে  ‘পানামা পেপারস’ কেলেঙ্কারি ফাঁস করে বিশ্বজুড়ে হৈচৈ ফেলে দিয়েছিল জার্মান দৈনিক জিতডয়েচ সাইতং। এবারও তারাই বিশ্বের খ্যাতিমান রাজনীতিবিদ, তারকা, করপোরেট অঙ্গনের ক্ষমতাধর ও ব্যবসায়ী নেতাদের আর্থিক লেনদেন ফাঁস করেছে প্যারাডাইস পেপারস কেলেঙ্কারিতে।

আর এই কেলেঙ্কারিতে সরাসরি ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের নাম এসেছে। সরাসরি না হলেও পরোক্ষভাবে এই কেলেঙ্কারিতে জড়িয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোও।

বারমুডা আইনি সহযোগী সংগঠন অ্যাপলবাই-এর কাছ থেকে প্রায় ১ কোটি ৩৪ লাখ গোপন নথি পেয়েছে জার্মানের দৈনিক জিতডয়েচ সাইতং। এরপর এগুলো ইন্টারন্যাশনাল কনসোর্টিয়াম অব ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিস্টসের (আইসিআইজে) সঙ্গে ভাগাভাগি করেছে সংবাদমাধ্যমটি।

প্যারাডাইস পেপারস কেলেঙ্কারির গোপন নথিগুলো এখন খতিয়ে দেখছে ৬৭টি দেশের ১০০টি মিডিয়া গ্রুপ। এর মধ্যে রয়েছে গার্ডিয়ান, বিবিসির মতো আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম।

প্রিয় সংবাদ/