(প্রিয়.কম) ব্রিটিশ মাল্টিন্যাশনাল ব্যাংক এবং ফিন্যানশিয়াল সেবা প্রতিষ্ঠান বারক্লেস বলছে, অ্যাপল যদি তাদের পরবর্তী হাই-অ্যান্ড আইফোন এর দাম ১ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি নির্ধারণ করে তাহলে তা কিনতে আগ্রহী হবে না ব্যবহারকারীরা। প্রতিষ্ঠানটির করা এক জরিপে দেখা গেছে, শুধু ১১ শতাংশ গ্রাহক ১০০০ ডলারের বেশি দিয়ে আইফোন কিনতে আগ্রহী। কিন্তু বেশিরভাগ ব্যবহারকারী ১২ মাসের ডিভাইস ইন্সটলমেন্টে মাসে ৪৮ ডলার অথবা ৫৮২ ডলার খরচ করতে চায়। 

তবে জরিপে অংশ নেওয়া ১৮ শতাংশ ব্যবহারকারী যাদের এখনো আইফোন রয়েছে তারা ১ হাজার ডলারের বেশি দিয়েও আইফোন কিনতে রাজি আছে। আর অ্যাপলের জন্য এই জরিপের ফলাফল দুঃসংবাদ বলা যায়। কেননা বেশ কিছু প্রতিবেদনে বলা হয়েছে আইফোন ৮ এর মূল্য হতে পারে ১ হাজার ২০০ ডলার বা তারও বেশি। 

তবে আশার বানী হলো- অ্যাপলের হাই অ্যান্ড ফোন আইফোন ৭ ইতোমধ্যে বাজারে রয়েছে। এবং ট্যাক্সসহ এই ফোনের দাম পড়ে ১ হাজার ডলারের বেশি। এবং অ্যাপল তাদের আইফোন ৮-এর সাথে আইফোন ৭এস এবং ৭এস প্লাস উন্মুক্ত করতে পারে। আর এই মডেল দুটি যারা ব্যয়বহুল আইফোন কিনতে চান না তাদের আকর্ষণ করতে পারে। 

বারক্লেস আরও জানিয়েছে, বৈশ্বিক বিবেচনায় জরিপে অংশ নেওয়া ৮৫ শতাংশ ব্যবহাকারী নতুন প্রজন্মের স্মার্টফোন ডিভাইস কিনতে বেশি অর্থ খরচেও রাজি আছে। এছাড়া অ্যাপল তাদের আইফোন আপগ্রেড প্রোগ্রামের মাধ্যমেও গ্রাহক টানতে সক্ষম। এই প্রোগ্রামে প্রতি ১২ মাস পরপর ব্যবহারকারীর বর্তমান ডিভাইসটি বদলে নতুন ডিভাইসটি নিতে পারে। 

সূত্র: সিএনবিসি

প্রিয় টেক/আশরাফ