(প্রিয়.কম) সম্প্রতি ভক্তদের একটি চমকে দেয়ার মতো খবর দিলেন মার্কিন পপ তারকা সেলেনা গোমেজ। তিনি জানালেন, তার কিডনি প্রতিস্থাপন করা হয়েছে। আর সেটি হয়েছে এই সামারের সময়েই। আর সবচাইতে চমকে দেয়ার মতো ব্যাপার হচ্ছে, সেলেনাকে কিডনি দান করেছেন তারই ঘনিষ্ঠ বান্ধবী ফ্রান্সিয়া।

২৫ বছর বয়সী সেলেনা ‘লুপাস’ নামের একটি বিরল রোগে ভুগছিলেন, এটি সবার জানা। কিন্তু এই রোগের কারণে যে তিনি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা হারিয়েছেন, এই খবর প্রকাশ্যে আনেননি এই তারকা। ব্যাপারটি এতই গুরুতর পর্যায়ে যেতে থাকে, যে তার কিডনিতে সমস্যা তৈরি হয়, যে কারণে ২০১৭ সালের সামারে তার অস্ত্রোপচার করা হয়। সম্প্রতি ইন্সটাগ্রামে ছবিসহ তথ্যটি জানিয়েছেন সেলেনা নিজেই।

ছবিতে দেখা যাচ্ছে, বান্ধবী ফ্রান্সিয়ার হাত ধরে হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে আছেন দুজনে। এছাড়াও আরও দুটি ছবি পোস্ট করেছেন সেলেনা। সেখানে তার পেটের কাটা দাগ দেখা যাচ্ছে। সব মিলিয়ে এ সংবাদ সত্য যে, খুব সম্প্রতি তিনি কিডনি প্রতিস্থাপন করিয়েছেন।

ইন্সটাগ্রামে ছবির সঙ্গে সেলেনা লিখেছেন, ‘আমি জানি আমার ভক্তরা আমার ব্যাপারে অনেক কৌতূহলী। কিছুদন আগে আমি খুব অসুস্থ ছিলাম। এবং ভক্তদের প্রশ্ন ছিল, কেন আমি আমার গানের জন্য প্রচারণা করিনি। আমি আমার নতুন গানের জন্য বেশ উচ্ছ্বসিত ছিলাম। কিন্তু একই সময়ে আমি আবিস্কার করলাম লুপাস ও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা হারানোর কারণে আমাকে দ্রুত কিডনি প্রতিস্থাপন করতে হবে। যার ফলে আমি লুপাস থেকে সুস্থ হতে পারবো।’

বান্ধবীর সঙ্গে হাসপাতালের বিছানায় সেলেনা গোমেজ। ছবি: সংগৃহীত।

অপারেশনের পর সেলেনা গোমেজের কাটা পেট। ছবি: সংগৃহীত।

তিনি আরও বলেন, ‘যা কিছু করেছি, সবই আমার স্বাস্থ্যের উন্নতির জন্য করেছি। আমি এই তথ্য জানানোর জন্য খুব উদ্গ্রীব ছিলাম। বর্তমানে আমি সঠিক সময় বেছে নিয়েছি ভক্তদের আমার সম্পর্কে এই গুরুত্বপূর্ণ তথ্যটি জানানোর জন্য। আমি আমার পরিবার ও চিকিৎসকদের এই ব্যাপারে ধন্যবাদ জানাতে চাই। তারা আমার খারাপ সময়ে আমাকে সময় দিয়েছেন।’

সেলেনা গোমেজ। ছবি: সংগৃহীত।

‘এবং সবশেষে, আমি আমার বিশেষ বন্ধুকে ধন্যবাদ জানাতে চাই তার আত্মত্যাগের জন্য। আমার সুন্দরী বান্ধবী ফ্রান্সিয়া, যে কিনা তার শরীরের অমূল্য সম্পদ আমাকে উপহার দিয়ে আমাকে কৃতজ্ঞ করেছে। এই ফ্রান্সিয়াই আমাকে তার কিডনি দিয়ে জীবন বাঁচিয়েছে। তাকে ধন্যবাদ জানানোর ভাষা আমার জানা নেই।' সেলেনা তার ইন্সটাগ্রামে এই কথাগুলো লিখেছেন।

এই ছবির নিচে মন্তব্যের ঘরে একজন ভক্ত লিখেছেন, ‘আপনারা দুজনেই খুব শক্ত মন ও সাহসী নারী।’ আবার একজন লিখেছেন, ‘আমার বিশ্বাস হচ্ছে না আমাদের প্রিয় তারকা এতোটা অসুস্থ ছিলেন!’ এছাড়াও অন্যান্য ভক্তরা তাকে দ্রুত সুস্থ হওয়ার জন্য শুভকামনা জানিয়েছেন।

সূত্র: মিরর

প্রিয় বিনোদন/গোরা