(প্রিয়.কম) গানের জগতের সেরা নাম টেইলর সুইফট। খুব অল্প সময়ে বেশ সুনাম কুড়িয়েছেন তিনি। গানের চেয়েও বেশি আলোচিত থেকেছেন বন্ধুত্ব, প্রেম, বিচ্ছেদ নিয়ে। এবার জানা গেলো, ইচ্ছাকৃতভাবে তার স্কার্টের ভিতর হাত ঢুকিয়ে নিতম্ব স্পর্শ করেছিলো ডিজে ডেভিড মুলার। সেই দৃশ্য স্বচক্ষে দেখেছেন টেইলরের দেহরক্ষী। গত বৃহস্পতিবার ছিল মামলাটির শুনানি।

এ খবরের নেপথ্য কাহিনি শুরু আজ থেকে চার বছর আগে। চার বছর আগে তিনি একটি মামলা দায়ের করেছিলেন। সাবেক ডিজে ডেভিড মুলারের বিরুদ্ধে তার অভিযোগ ছিল, তিনি নাকি সুইফটের নিতম্বে স্পর্শ করেছিলেন। অপরদিকে মুলার জানিয়েছিলেন, তিনি অনিচ্ছাকৃতভাবে স্পর্শ করে ফেলেছিলেন। কিন্তু সুইফট এ কথা মানতে নারাজ। সুইফট বলছেন, ইচ্ছাকৃতভাবে নিতম্বে হাত দিয়েছিলেন মুলার। এবং এই অপরাধে চাকরি হারিয়েছিলেন সাবেক ডিজে।

২০১৩ সালে টেইলর সুইফটের সঙ্গে ছবি তোলার সময় যৌন হয়রানিমূলক আচরণ করেছিলেন এমন অভিযোগে চাকরি হারান মুলার। আত্মপক্ষ সমর্থন করে সুইফটের বিরুদ্ধে মামলা করেন তিনি। সে মামলায় নিজেকে নির্দোষ দাবি করে মুলার বলেন, এমন কোনও কাজ তিনি করেননি। পালটা মামলা করেন টেইলর। যৌন হয়রানির জন্য সরাসরি মুলারকে অভিযুক্ত করেন তিনি। সেই মামলারই শুনানি ছিল। আট সদস্যের বিচারকমণ্ডলীর আসনে ছিলেন ছয় মহিলা ও দুই পুরুষ।

রেডিও জকি ডেভিড মুলারের বিরুদ্ধে ভরা আদালতকক্ষে সুইফট বললেন, ইচ্ছাকৃত তাকে নোংরাভাবে স্পর্শ করেছেন ডেভিড। সেখানে টেইলরের কাছে সেদিনের ঘটনা সম্পর্কে জানতে চান মুলারের আইনজীবী গ্যাবরিয়েল ম্যাকফারল্যান্ড। তার উত্তরে বিচারকদের সামনে টেইলর বলেন, সেই রাতে ইচ্ছে করে স্কার্টে হাত দিয়েছিলেন মুলার। তিনি সেটি বুঝতে পারেন। টেইলরের এই বয়ানের পর স্বাভাবিকভাবেই অস্বস্তিতে পড়তে হয়েছে মুলারকে।

সূত্র: স্কাই নিউজ

প্রিয় বিনোদন/গোরা