(প্রিয়.কম) রাজধানীতে এক ফটোসাংবাদিককে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করেছেন এক সার্জেন্ট। নাসির উদ্দিন নামের ওই ফটোসাংবাদিক মানবজমিন পত্রিকায় কর্মরত রয়েছেন। মারধরের অভিযোগে ইতোমধ্যে ট্রাফিক পুলিশের ওই সার্জেন্টকে ক্লোজ করা হয়েছে।

১২ অক্টোবর বুধবার বিকালে মৎস ভবনের সামনের রাস্তায় এ ঘটনা ঘটেছে।

জানা গেছে, নাসির প্রেসক্লাব থেকে মোটরসাইকেল করে নিজ অফিসে যাচ্ছিলেন। নাসিরের মোটরসাইকেলটি মৎস ভবন মোড়ে আসার পর সার্জেন্ট মুস্তাইন তার মোটরসাইকেলটি থামাতে বলেন। এ সময় সার্জেন্ট মুস্তাইন মোটরসাইকেলের কাগজপত্র দেখতে চান। কাগজপত্র দেখা শেষে হেলমেট কেন নেই তা জানতে চান তিনি। এ সময় তার পেছনে মোটরসাইকেলে ছিলেন দৈনিক জনকণ্ঠ পত্রিকার সাংবাদিক জীবন ঘোষ।

নাসির এ সময় তার হেলমেটটি চুরি হয়ে গেছে বলে জানান এবং শীঘ্রই হেলমেট কিনবেন বলে মামলা না করার অনুরোধ করেন ওই সার্জেন্টকে। এ সময় সার্জেন্ট মুস্তাইন তাকে অকথ্য ভাষায় গালাগালি করেন।

রাজধানীর মৎস্য ভবনের সামনে এক সাংবাদিককে মারধর করেন ট্রাফিক সার্জেন্ট। ছবি: স্টার মেইল

এর প্রতিবাদ করলে ওই সার্জেন্ট নাসিরের গেঞ্জির কলার ধরে চড়-থাপ্পর মারতে শুরু করেন। নাসির এ সময় তার ক্যামেরাটি বের করলে সার্জেন্ট মুস্তাইন তার ক্যামেরাটি কেড়ে নেন।

ওই সার্জেন্ট নাসিরকে মৎস ভবন পুলিশ বক্সে নিয়ে বসিয়ে রাখেন এবং তার মোবাইল ফোনটিও কেড়ে নেন।

পরে বিষয়টি জানতে পেরে নাসিরের সহকর্মীরা তাকে উদ্ধার করে নিয়ে আসেন।

এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সার্জেন্ট মুস্তাইনকে ক্লোজ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ট্রাফিক বিভাগের এসি মো. হারুন।

প্রিয় সংবাদ/রিমন