(প্রিয়.কম) কক্সবাজার জেলার উখিয়ার পালংখালী সীমান্তের জিরো লাইনে আশ্রয় নেওয়া মিয়ানমারের বাস্তুচ্যুত ১৫ হাজার রোহিঙ্গা শরণার্থীকে ১৯ অক্টোবর বৃহস্পতিবার বালুখালী ক্যাম্পে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। 

কক্সবাজারে বিজিবির ৩৪ ব্যাটালিয়নের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মেজর ইকবাল আহমেদ জানান, ইউএনএইচসিআর, আইওএম, এমএসএফ ও রেড ক্রিসেন্টসহ বিভিন্ন সংস্থার মানবিক সহায়তায় রোহিঙ্গাদের বালুখালী ক্যাম্পে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

মেজর ইকবাল বলেন, ‘মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা ১৫ হাজার রোহিঙ্গা গত ৪ দিন ধরে উখিয়ার পালংখালী ইউনিয়নের আঞ্জুমানপাড়া সীমান্ত পয়েন্টে শূন্যরেখায় আশ্রয় নেয়। এসব রোহিঙ্গাদের খাবার ও চিকিৎসাসহ নানা ধরনের মানবিক সহায়তা দেওয়া হয়েছে।’ 

তিনি বলেন, ‘তাদের (রোহিঙ্গা) সরিয়ে নেওয়ার ব্যাপারে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা পাওয়া গেলে আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংস্থার উদ্যোগে শুকনো খাবার, চিকিৎসা, বিশুদ্ধ পানি ও পরিবহণ ব্যবস্থাসহ নানা ধরনের মানবিক সহায়তা দিয়ে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে স্থানান্তর করা হয়েছে।’

বিজিবি কর্মকর্তা ইকবাল বলেন, মিয়ানমারের রোহিঙ্গা নাগরিকরা কোনো ধরনের অস্ত্র, বিস্ফোরক ও মাদকসহ অন্যান্য অবৈধ কোনো জিনিসপত্র এনেছে কিনা তা তল্লাশি করা হয়। আরআরসি, ইউএনএইচসিআর, আইওএম ও রেড ক্রিসেন্টসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের দ্বারা রোহিঙ্গার কাছ থেকে তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ শেষ করে ক্যাম্পে নিয়ে আসা হয়েছে।

প্রিয় সংবাদ/শান্ত