(প্রিয়.কম) মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও উত্তর কোরীয় নেতা কিম জং-উনের বাগ্‌যুদ্ধের উত্তেজনা চরমে পৌঁছেছে। তাদের হুমকি-পাল্টা হুমকিতে মনে হচ্ছে, দুই দেশের মধ্যে ভয়াবহ যুদ্ধ বেধে যেতে পারে যেকোনো সময়। আর এই যুদ্ধের দুশ্চিন্তায় আন্তর্জাতিক বাজারে সোনার দাম বেড়ে গেছে।

১২ আগস্ট শুক্রবার রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্র ও উত্তর কোরিয়ার মধ্যকার আসন্ন যুদ্ধের ‘দুশ্চিন্তায়’ বিনিয়োগকারীরা ব্যাপকভাবে সোনার দিকে ঝোঁকার কারণেই সোনার দাম বাড়ছে। শুক্রবার প্রতি আউন্স সোনার দাম বেড়ে ১ হাজার ২৮৭ দশমিক ৯১ মার্কিন ডলার হয়। গত দুই মাসের মধ্যে এটিই সোনার সর্বোচ্চ দাম।

প্রশান্ত মহাসাগরে যুক্তরাষ্ট্রের ভূখণ্ড গুয়ামে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার হুমকি দিয়েছে উত্তর কোরিয়া। গতকাল শনিবার যুক্তরাষ্ট্রের নিউজার্সি অঙ্গরাজ্যের বেডমিনস্টারে নিজের গলফ রিসোর্টে  ট্রাম্প গুয়ামে কিছু ঘটলে উত্তর কোরিয়াকে ‘বড়, বড় বিপদে’ পড়তে হবে বলে হুঁশিয়ার করেছেন।

এদিকে গবেষক ও কোয়ানটেটিভ কমোডিটি রিসার্চ কনসালট্যান্ট পিটার ফেরটিগ রয়টার্সকে বলেছেন, উত্তর কোরিয়া নিয়ে ট্রাম্পের হুংকারের কারণেই বিনিয়োগকারীরা নিরাপদ বিনিয়োগ হিসেবে সোনাকে বেছে নিচ্ছেন। সে জন্য সোনার দাম বাড়ছে।

তিনি আরও বলেন, শিগগিরই দুশ্চিন্তা না কাটলে সোনার দাম আরও বাড়বে বলেই মনে হচ্ছে।

এদিকে বিশ্ববাজারের প্রভাবে গত দুই সপ্তাহের মধ্যে দেশের বাজারেও আবার সোনার দাম বাড়ছে। প্রতি ভরিতে ২২ কেরেট এবার সর্বোচ্চ ১ হাজার ৫১৬ টাকা পর্যন্ত বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি (বাজুস)। আজ ১৩ আগস্ট রোববার থেকে সারা দেশে সোনার নতুন এই দর কার্যকর হবে।

প্রিয় সংবাদ/আশরাফ