(প্রিয়.কম) এক ব্রিটিশ নারী চোখে ছানির সমস্যায় ভুগছিলেন। তার চোখে অস্ত্রোপচার করার সিদ্ধান্ত নেন চিকিৎসকরা। আর সেই অস্ত্রোপচারের আগে পরীক্ষায় দেখা গেল, তার চোখে আটকে রয়েছে ২৭টি কন্টাক্ট লেন্স! ঘটনায় রীতিমতো হতবাক চিকিৎসকরা। যে কারণে স্থগিত করে দেওয়া হয়েছে চোখের ছানি অপারেশন।

প্রায় ৩৫ বছর ধরে এক বিশেষ ধরনের কন্টাক্ট লেন্স ব্যবহার করছেন তিনি। এক মাস, বড়জোর দু’মাস ব্যবহার করার পরই ওই লেন্সগুলি চোখ থেকে খুলে ফেলতে হয়। কিন্তু তা করেননি তিনি। তার চোখেই লেন্সগুলি জমা হতে থাকে। পরে ছানির কারণে দেখতে সমস্যা হওয়ায় চিকিৎসকের কাছে যান তিনি। অস্ত্রোপচারের আগে রুটিন ডাক্তারি পরীক্ষায় বিষয়টি ধরা পড়ে। প্রথমে সেই নারীর চোখে ১৭টি কন্টাক্ট লেন্স আটকে থাকতে দেখা যায়। পরে ভালো করে পরীক্ষা করার পর চোখে আরও ১০টি কন্টাক্ট লেন্সের সন্ধান পান চিকিৎসকরা। 

ইংল্যান্ডের যে হাসপাতালে তার চোখে অস্ত্রোপচার হওয়ার কথা ছিল, সেই হাসপাতালের এক চিকিৎসক বলেন, ‘আমরা এইরকম ঘটনা আগে দেখিনি। তার চোখের ভিতরে প্রায় ১৭টি কন্টাক্ট লেন্স একসঙ্গে আটকে রয়েছে। অথচ উনি কিছুই টের পাননি। এটা আমাদের অবাক করেছে। কারণ এক্ষেত্রে চোখে প্রচণ্ড অস্বস্তি হওয়ার কথা।’ তবে ব্রিটিশ নারী জানিয়েছেন, মাঝেমধ্যে চোখে অস্বস্তি অনুভব করতেন তিনি। কিন্তু বার্ধক্যজনিত কারণে এমন হচ্ছে ভেবে বিষয়টিকে গুরুত্ব দেননি। 

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

প্রিয় জটিল/গোরা