রবিবার হামলার পর রেস্টুরেন্ট থেকে বেরিয়ে যাচ্ছেন ভোক্তা সাধারণ। ছবি: প্রিয়.কম

রেস্টুরেন্টে স্বেচ্ছাসেবক লীগের তাণ্ডব!

জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরা কোনো কারণ ছাড়াই হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করেছে বলে দাবি করেন তারা।

ইয়াহ্ইয়া মারুফ
নিজস্বপ্রতিবেদক, সিলেট
প্রকাশিত: ১৩ মে ২০১৮, ২১:১৬ আপডেট: ২০ আগস্ট ২০১৮, ১৮:৪৮
প্রকাশিত: ১৩ মে ২০১৮, ২১:১৬ আপডেট: ২০ আগস্ট ২০১৮, ১৮:৪৮


রবিবার হামলার পর রেস্টুরেন্ট থেকে বেরিয়ে যাচ্ছেন ভোক্তা সাধারণ। ছবি: প্রিয়.কম

(প্রিয়.কম) সিলেট নগরীর একটি রেস্টুরেন্টে সেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরা ব্যাপক ভাঙচুর করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

১৩ মে, রবিবার বেলা দেড়টার দিকে নগরীর জিন্দাবাজারের ভোজনবাড়ি রেস্টুরেন্টে এ হামলা চালানো হয় বলে অভিযোগ করেন কর্তৃপক্ষ। জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরা কোনো কারণ ছাড়াই হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করেছে বলে দাবি করেন তারা।

সিলেট শহরের জিন্দাবাজার এলাকার ভোজনবাড়ি রেস্টুরেন্ট। ছবি: প্রিয়.কম

এ বিষয়ে সিলেট মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আফতাব হোসেন খান প্রিয়.কমকে  জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়কে নিয়ে কটূক্তির প্রতিবাদে নগরীতে মিছিল বের করে জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাকর্মীরা। মিছিলটি ভোজনবাড়ি রেস্টুরেন্টের সামনে গেলে মিছিলকারীদের লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে কয়েকজন স্টাফ। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে মিছিলকারীরা পাল্টা জবাব দেয়। 

পুলিশ জানায়, লন্ডনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটূক্তির প্রতিবাদে মিছিল করে সিলেট জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগ। প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তিকারী ওই বিএনপি নেতা এই রেস্টুরেন্টের পরিচালক। এমন ক্ষোভেই হোটেলে হামলা হয়ে থাকতে পারে। 

বন্দর বাজার পুলিশ ফাঁড়ির উপপরিদর্শক (এসআই) নজরুল ইসলাম প্রিয়.কমকে  বলেন, ‘জেলা ও মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের একটি মিছিল থেকে ভোজনবাড়ি রেস্টুরেন্টে হামলা চালিয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে খবর পেয়েছি। পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেছে। অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত সাপেক্ষে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

প্রিয় সংবাদ/নোমান/শান্ত