টেকনাফে বন্দুকযুদ্ধে রোহিঙ্গাসহ তিন সন্ত্রাসী নিহত

মানবজমিন প্রকাশিত: ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০

টেকনাফ উপজেলার শামলাপুর ঢালারমুখ পাহাড়ি এলাকায় পুলিশের সঙ্গে সন্ত্রাসীদের গোলাগুলির ঘটনায় ৩ পুলিশ আহত ও দুই রোহিঙ্গাসহ তিন অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ৩টি এলজি, ৬ রাউন্ড তাজা কার্তুজ, ৮ রাউন্ড খালি খোসা উদ্ধার করেছে পুলিশ। আহত পুলিশের তিন সদস্যরা হচ্ছে- এএসআই হাবিব উল্লাহ, কনস্টেবল রাকিবুল ও দেলোয়ার। নিহতরা হচ্ছে- কক্সবাজারের উখিয়া বালুখালী ১৭নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ফজল আহাম্মদের ছেলে মোহাম্মদ জামিল (২০), একই ক্যাম্পের নবী হোসেনের ছেলে আসমত উল্লাহ (২১) ও টেকনাফের বাহারছড়া নতুনপাড়া এলাকার মৃত মোহাম্মদ আলীর ছেলে রফিক (২৪)। টেকনাফ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ বলেন, বুধবার রাতে হত্যা, অস্ত্র ও মাদক মামলার তিন আসামিকে আটকের পর ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে তারা চুরি, অপহরণ, খুনসহ বিভিন্ন কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে। পরে তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী বৃহস্পতিবার ভোররাতে বাহারছড়া শামলাপুর ঢালার মুখে জঙ্গল এলাকায় অস্ত্র ও চোরাই মালামাল উদ্ধারের জন্য গেলে তাদের সহযোগীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোঁড়ে। এ সময় পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালায়। এক পর্যায়ে সন্ত্রাসীরা পিছু হটলে ঘটনাস্থল থেকে গুলিবিদ্ধ ৩ জনকে উদ্ধার করে টেকনাফ উপজেলা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাদের উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। সেখানে কর্মরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন। তিনি আরো জানান, এলাকার আইনশৃঙ্খলা স্বাভাবিক রয়েছে এবং এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।
সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন