অত্যাচারের নীরব সাক্ষী ওয়াপদা কলোনির টর্চার সেল

বণিক বার্তা প্রকাশিত: ০৮ ডিসেম্বর ২০১৯, ১০:০২

১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধের নীরব সাক্ষী বরিশাল নগরীর ওয়াপদা কলোনির টর্চার সেল। যেখানে পাকিস্তানি সেনাদের অমানুষিক নির্যাতনে প্রাণ হারিয়েছে অসংখ্য নিরীহ বাঙালি। আজো কালের সাক্ষী হয়ে দাঁড়িয়ে আছে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর সেই টর্চার সেল, বাংকার আর বধ্যভূমির সেতুটি; যা স্মরণ করিয়ে দেয় মুক্তিযুদ্ধের সেই রোমহর্ষক ঘটনা। দীর্ঘদিন অরক্ষিত অবস্থায় পড়ে থাকা মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত টর্চার সেল ও বধ্যভূমি সংরক্ষণের উদ্যোগ নিয়েছেন বরিশাল সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ। তার উদ্যোগে ’৭১-এ নির্মম নির্যাতনের অবয়ব ফিরিয়ে আনতে নতুন আঙ্গিকে সাজানো হয়েছে বধ্যভূমি। এতে সহযোগিতা করছে প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর ও মুক্তিযোদ্ধা জাদুঘর। মুক্তিযুদ্ধের অবয়বে সজ্জিত নতুন এ বধ্যভূমি আজ বরিশাল হানাদারমুক্ত দিবসে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের উদ্বোধন ও উন্মুক্ত করবেন। স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধারা জানান, একাত্তরের ২৫ মার্চ রাতে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে মুক্তিকামী বাঙালিদের ওপর গণহত্যা শুরু করে।
সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন
এই সম্পর্কিত
আরও

‘উড়ে’ আসছে ইয়াবা

৩ ঘণ্টা, ৩২ মিনিট আগে