রুম্পাকে ছাদ থেকে ফেলে দেয় সৈকত!

ইত্তেফাক প্রকাশিত: ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৩:২৫

স্টামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের ছাত্রী রুম্পা হত্যা মামলায় তার বন্ধু আব্দুর রহমান সৈকতের চার দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। গতকাল রবিবার তাকে ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য তার বিরুদ্ধে সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক আখতারুজ্জামান ইলিয়াস। অপরদিকে তার আইনজীবী রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিনের আবেদন করেন। শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম মামুনুর রশিদ জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন। শনিবার রাতে সৈকতকে আটক করে গোয়েন্দা কার্যালয়ে নেওয়া হয়। সেখানে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে গতকাল তাকে রমনা থানার মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়। ২২ বছর বয়সি সৈকত স্বীকার করেছেন, রুম্পা তার প্রেমিকা। ঘটনার দিন সন্ধ্যায় রুম্পার সঙ্গে তার কথা হয়। সৈকত এক সময় স্টামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ছিলেন। শুনানিতে যা বলা হয়েছে : আদালতে সৈকতের পক্ষে আইনজীবী আবদুল হামিদ ভূঁইয়া বলেন, এক সপ্তাহ আগেই আসামির বাবা মারা গেছেন। তারও সপ্তাহ খানেক আগে তার চাচা মারা যান।
সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন
এই সম্পর্কিত
আরও