এবি ডি ভিলিয়ার্স। ছবি: সংগৃহীত

বিশ্বকাপে ফিরতে চেয়েছিলেন ভিলিয়ার্স, টিম ম্যানেজমেন্টের অসম্মতি

সর্বশেষ নিজেদের তৃতীয় ম্যাচেও ভারতের বিপক্ষে ৬ উইকেটের বড় হার দেখেছে প্রোটিয়ারা।

সৌরভ মাহমুদ
সহ-সম্পাদক
প্রকাশিত: ০৬ জুন ২০১৯, ১৪:৫৫ আপডেট: ০৬ জুন ২০১৯, ১৮:১১
প্রকাশিত: ০৬ জুন ২০১৯, ১৪:৫৫ আপডেট: ০৬ জুন ২০১৯, ১৮:১১


এবি ডি ভিলিয়ার্স। ছবি: সংগৃহীত

(প্রিয়.কম) একটা সময় ব্যাট হাতে শাসন করেছেন পুরো বিশ্বের বোলারদের। মাঠের যেকোনো প্রান্ত দিয়ে বল সীমানা ছাড়া করতে পারেন বলে পেয়েছেন ‘মিস্টার ৩৬০ ডিগ্রি’ খেতাব। কিন্তু বিশ্বকাপের মাত্র এক বছর আগে ২০১৮ সালে হঠাৎ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়ে দেন দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক অধিনায়ক এবি ডি ভিলিয়ার্স

তবে ২০১৯ বিশ্বকাপের ঠিক আগমুহূর্তে অবসর ভেঙে ফেরার ইচ্ছা পোষণ করেছিলেন ভিলিয়ার্স। এমনকি দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থার কাছে প্রস্তাব দিয়েছিলেন ফেরার। তবে দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিস, কোচ ওটিস গিবসন ও টিম ম্যানেজমেন্ট সেই প্রস্তাবে অসম্মতি জানান। 

ক্রিকেটবিষয়ক জনপ্রিয় ওয়েববসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফোর বরাত দিয়ে জানা যায়, ২০১৯ ওয়ানডে বিশ্বকাপের চূড়ান্ত দল ঘোষণার ঠিক আগে এই প্রস্তাব দেন ভিলিয়ার্স। তবে তা নাকচ করে দেয় প্রোটিয়া টিম ম্যানেজমেন্ট।

এর পেছনে তারা যুক্তি দেখিয়েছে, এক বছর ধরে দলে নেই ভিলিয়ার্স। যার জেরে নির্বাচন প্রক্রিয়া তাকে ছাড়াই ভাবনা শুরু করে। তাছাড়া ভিলিয়ার্সকে ফেরানো মানে বর্তমানে খেলতে থাকা ক্রিকেটারদের সঙ্গে অবিচার করা।

ওয়ানডে বিশ্বকাপের ১২তম আসরে খুব বাজেভাবেই শুরু করেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। উদ্বোধনী ম্যাচে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের কাছে হেরেছে তারা। এরপর দ্বিতীয় ম্যাচে বাংলাদেশের কাছে হারে তারা। সর্বশেষ নিজেদের তৃতীয় ম্যাচেও ভারতের বিপক্ষে ৬ উইকেটের বড় হার দেখেছে প্রোটিয়ারা। এর মাঝেই দলটি পেয়েছে বড় দুঃসংবাদ। ইনজুরির কারণে বিশ্বকাপ শেষ প্রোটিয়া তারকা পেসার ডেল স্টেইনের।

প্রিয় খেলা/রুহুল