মুসলিম মনীষী

একজন জন্মান্ধ হাফেজে কোরআনের গল্প

হাফেজ তানভীর এক সাক্ষাৎকারে বলেন, কোরআন হেফজ করার পূর্বে কেউ আমাকে চিনত না, এমনকি আমি নিজেই নিজেকে আবিষ্কার করতে পারিনি; তবে যখন আমি কোরআন হেফজ করলাম, তখন থেকে অনেক বরকত খুঁজে পেয়েছি।

মিরাজ রহমান ১৭ জানুয়ারি ২০১৭, ০৩:৫৩

ইমাম আবু হানিফা (রহ.) : জীবন ও কর্ম

তিনি ছিলেন আপোষহীন ব্যাক্তিত্ব। নীতির জন্য যে কোন ত্যাগ স্বীকার করা ছিল তাঁর চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য। কুফার উমাইয়া গভর্নর ইয়াজিদ ইবনে আমর ইবনে হুবায়রা এবং পরে আব্বাসি খলিফা মানসুর তাঁকে প্রধান কাজির পদ দান করলে তিনি তা দৃঢ় তার সাথে প্রত্যাখ্যান করেন। এই কারণে তাঁকে দৈহিক শাস্তি ও কারাদণ্ড ভোগ করতে হয় এবং অবশেষে বিষ পানে প্রান ত্যাগ করতে হয়। তবুও তিনি নীতির প্রশ্নে আপোষ করেন নি ।

মিরাজ রহমান ১০ ডিসেম্বর ২০১৬, ০৪:২৫

হজরতজি ইলিয়াস কান্ধলভি [রহ.] যেভাবে রমজান ও রোজা যাপণ করতেন

রাত বারোটার দিকে তিনি সজাগ হয়ে যেতেন। ওই সময় সেবকরা গরম দুটি সিদ্ধ ডিম তাকে দেয়া হতো। প্রয়োজনীয় কাজ সেরে ফ্রেশ হয়ে তিনি ডিম দুটো খেয়ে নিতেন। তারপর তিনি তাহাজ্জুদে দাঁড়িয়ে যেতেন। একেবারে শেষ সময়ে তিনি সাহরি খেতেন।

মাওলানা আমিন আশরাফ ২৫ জুন ২০১৬, ০৪:৫০

হজরত হোসাইন আহমদ মাদানির [রহ.] রমজান ও রোজা

মাগরিবের নামাজ খুবই সংক্ষিপ্তাকারেই পড়তেন। পরে তিনি লম্বা লম্বা সুরা দিয়ে নফল নামাজ পড়তেন, যাতে আধঘণ্টা লেগে যেত। এরপর দীর্ঘ সময় পর্যন্ত দুআ করতেন। উপস্থিত সবাই ওই দুআতে শামিল হতেন।

মাওলানা আমিন আশরাফ ২২ জুন ২০১৬, ০৫:৫৩

হজরত আশরাফ আলী থানভি [রহ.] যেভাবে রমজানে যাপন করতেন

তিনি সাধারণত মাদরাসায় মেহমানদের সঙ্গে ইফতার করতেন। তারপর হাত ধুতেন, কুলি করতেন। এরপর ধীরে সুস্থে, মাগরিবের নামাজের জন্য দাঁড়াতেন। আজান ও জামাতের মাঝে এতোটুকু ব্যবধান হতো যে, একজন মানুষ ধীরে সুস্থে উজু করে তাকবিরে উলার সঙ্গে মাগরিবের জামাতে শরীক হতো।

মাওলানা আমিন আশরাফ ২০ জুন ২০১৬, ০৩:৪৪

শায়খুল হিন্দ মাহমুদুল হাসান দেওবন্দির [রহ.] রমজান পালন

হযরত সায়্যিদ আসগর হুসাইন মিঞা সাহেব তার লিখিত ‘সাওয়ানেহে শাইখুল হিন্দে’ লিখেন, রমজান মাস এলে শাইখুল হি›-এর রহ. দিনরাত শুধু মহান আল্লাহর ইবাদাত ছাড়া অন্যকোনো কাজ থাকতো না। তিনি হাফেজ ছিলেন না, নামাজে কুরআন তেলাওয়াত শুনার জন্য তিনি কয়েকজন হাফেজ নির্ধারণ করে রাখতেন।

মাওলানা আমিন আশরাফ ১৮ জুন ২০১৬, ০৩:৫৬

হাজী ইমদাদুল্লাহ মুহাজিরে মক্কী [রহ.] যেভাবে রমজান কাটাতেন

ইশার পর আরো দুজন হাফেজ কুরআন তেলাওয়াত শুনাতো। পরে অর্ধেক রাত পর্যন্ত আরেকজন ও তাহাজ্জুদে আরো দুজন হাফেজ আমাকে কুরআন তেলাওয়াত করে শুনাতো। মোটকথা এভাবে তাঁর সারারাত কেটে যেত। [ইমদাদুল মিশকাত]

মাওলানা আমিন আশরাফ ১৫ জুন ২০১৬, ০৫:০৩

বহুমুখী প্রতিভার অনন্য উদারহণ একজন ডক্টর আবদুল্লাহ জাহাঙ্গীর

ড. আবদুল্লাহ জাহাঙ্গীর ব্যক্তিজীবনে ছিলেন অত্যন্ত সদালাপী, বিনয়ী ও যুগসচেতন মানুষ । মুসলিম উম্মাহর জন্য অভাবনীয় দরদ পোষণ করতেন তিনি এবং উম্মাহর ঐক্য নিয়ে তার ভাবনা ছিলো সীমাহীন ।

মিরাজ রহমান ১২ মে ২০১৬, ০৫:২৪

বিশ্বনন্দিত মুসলিম স্কলার : বিচারপতি মুফতি মুহাম্মাদ তকি উসমানি

বিচারপতি মুফতি মুহাম্মাদ তকি উসমানি বর্তমান বিশ্বের একজন প্রখ্যাত ইসলামি ব্যক্তিত্ব। তিনি হাদিস, ইসলামি ফিকহ, তাসাউফ ও অর্থনীতিতে বিষয়ে বিশেষজ্ঞ। তিনি বর্তমানে ইসলামি অর্থনীতিতে সক্রিয় ব্যক্তিদের অন্যতম। তিনি ১৯৮০ সাল থেকে ১৯৮২ সাল পর্যন্ত পাকিস্তানের কেন্দ্রীয় শরীয়াহ আদালতের এবং ১৯৮২ থেকে ২০০২ সাল পর্যন্ত পাকিস্তান সুপ্রিম কোর্টের শরীয়াহ আপিল বেঞ্চের বিচারক ছিলেন।

সালাহউদ্দীন জাহাঙ্গীর ১২ ডিসেম্বর ২০১৫, ০১:৫০

মোহনীয় বক্তৃতার জাদুকর বিখ্যাত মিডিয়া স্কলার : ওস্তাদ নোমান আলি খান

পশ্চিমা বিশ্বে ইসলামকে দ্রুত পরিচিত করতে এবং ইসলামের দাওয়াতকে সর্বস্তরে পৌঁছে দিতে যে কয়জন মুসলিম স্কলার কাজ করছেন, নোমান আলি খান তাদের অন্যতম। বিশেষত আমেরিকা এবং ইউরোপের যুবকশ্রেণির কাছে তিনি বিপুল জনপ্রিয়। আধুনিক বিশ্বে সমসাময়িক ধর্মীয় বিষয় নিয়ে তিনি বক্তৃতা করে থাকেন।

সালাহউদ্দীন জাহাঙ্গীর ০৩ ডিসেম্বর ২০১৫, ০৪:০৩

loading ...