(প্রিয় টেক) পৃথিবীকে বদলে দেবার প্রয়াসে শুধুমাত্র শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে, বিগত দশ বছর ধরে বিশ্বের বৃহত্তম সফটওয়্যার নির্মাতা প্রতিষ্ঠান মাইক্রোসফট ‘ইমাজিন কাপ’ শীর্ষক প্রতিযোগিতার আয়োজন করে আসছে। গতবছর যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্ক শহরে অনুষ্ঠিত ইমাজিন কাপ ২০১১ ওয়ার্ল্ড ওয়াইড ফাইনালে বাংলাদেশ প্রথমবারের মত অংশগ্রহণ করেই জয় করে নেয় পিপলস চয়েস পুরস্কারটি। বাংলাদেশের জন্য এটি একটি বড় প্রাপ্তি এবং তথ্য-প্রযুক্তির প্রতিযোগিতায় বিশ্ব দরবারে প্রথম স্থান হিসেবে এটিই বাংলাদেশের প্রথম প্রাপ্তি।
ছবিতে বাম থেকে মাইক্রোসফট বাংলাদেশের ডেভেলপার ইভাঞ্জালিস্ট অমি আজাদ, পাবলিক সেক্টর অ্যাকাউন্ট ম্যানেজার শামীম উদ্দিন আহমেদ, কান্ট্রি ম্যানেজার সিরিয়ান ডি সিলভা ওয়াইজেয়েরাত্বে, টেলিফোন শিল্প সংস্থার ব্যবস্থাপনা পরিচালক ড. আবু সাইদ খান, সাধারণ ব্যবস্থাপক (প্লাট এন্ড কমার্শিয়াল)মোহাম্মদ মোয়াশির।
বিশ্বব্যাপী মাইক্রোসফট ইমাজিন কাপ ২০১২-এর প্রচারণা ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গেছে। বাংলাদেশেও আনুষ্ঠানিক প্রচারণা চলছে মাইক্রোসফটের এ প্রতিযোগিতার। ইতিমধ্যে দেশের শীর্ষ স্থানীয় বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে সম্পন্ন হয়েছে ইমাজিন কাপের বুটক্যাম্প। এবছর মাইক্রোসফটের এ প্রতিযোগিতার পৃষ্ঠপোষক হয়েছে দেশীয় ল্যাপটপ দোয়েল। বাংলাদেশ টেলিফোন শিল্প সংস্থা বা টেশিস ইতিমধ্যে মাইক্রোসফটের সঙ্গে আনুষ্ঠানিক চুক্তি সম্পন্ন করেছে। টেশিসের জেনারেল ম্যানেজার (প্লান্ট ও কমার্শিয়াল) মোহাম্মদ মোয়াশির জানান, দেশের মেধাবী তরুণদের তথ্য-প্রযুক্তিতে উৎসাহিত করতেই টেশিসের এ উদ্যোগ। তিনি আরো জানান, বাংলাদেশের একমাত্র সংযোজিত ল্যাপটপ 'দোয়েল' পুরস্কার হিসাবে থাকছে ইমাজিন কাপ ২০১২-এর প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানকারী দলের প্রত্যেক সদস্যের জন্য। মাইক্রোসফটের ডেভেলপার ইভাঞ্জালিস্ট অমি আজাদ জানান, দেশীয় দোয়েল ল্যাপটপ বিজয়ীদের আরো বেশী উৎসাহিত করবে তথা নতুন প্রজন্মের কাছে দেশীয় প্রযুক্তি একটি পরিচয় বহন করবে বলে আমরা মনে করি। ইমাজিন কাপ আয়োজনের নিউজ পার্টনার হিসাবে রয়েছে দৈনিক কালের কণ্ঠ এবং অনলাইন পার্টনার হিসাবে রয়েছে প্রিয় টেক